kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭। ২ মার্চ ২০২১। ১৭ রজব ১৪৪২

মাথাভাঙ্গা নদী থেকে অবৈধ বাঁধ অপসারণ, একজনের জেল

দামুড়হুদা (চুয়াডাঙ্গা) প্রতিনিধি    

২৯ ডিসেম্বর, ২০২০ ১৪:৩২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মাথাভাঙ্গা নদী থেকে অবৈধ বাঁধ অপসারণ, একজনের জেল

দামুড়হুদার মাথাভাঙ্গা নদীতে অবৈধ বাঁধ ও কোমর উচ্ছেদ করা হচ্ছে। ছবি: কালের কণ্ঠ।

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদার মাথাভাঙ্গা নদীতে অবৈধ বাঁধ উচ্ছেদে অভিযান চালিয়েছে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নির্বাহী ম্যাজিট্রেট দিলারা রহমান।

আজ মঙ্গলবার (২৯ ডিসেম্বর) দুপুরে উপজেলার রঘুনাতপুর থেকে এই বাঁধ অপসারণ শুরু করা হয়। সুবলপুর থেকে বাস্তুপুর পর্যন্ত প্রায় ১০টি বাঁধ ও কোমর (পানিতে নির্দিষ্ট স্থানে ডালপালা ফেলে মাছ সংরক্ষণের ব্যবস্থা) অপসারণ করা হয়। এসময় নদীতে অবৈধভাবে বাঁধ দেওয়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে দণ্ডবিধির ১৮৬০ সালের ১৮৮ ধারায় সাইফুল ইসলাম (৩৫) নামের একজনের ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

সাইফুল ইসলাম দামুড়হুদার সুবলপুর গ্রামের আজগর আলির ছেলে।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, দামুড়হুদা উপজেলার ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া মাথাভাঙ্গা নদীতে অবৈধভাবে বাঁধ ও কোমর ঘিরে অবাধে মাছ শিকার করা হচ্ছে। নদীতে আড়াআড়ি বাঁধ দিয়ে নদীর স্রোত বাধাগ্রস্ত করে মাছ শিকার আইনগতভাবে সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। নদীতে আড়াআড়িবাবে বাঁধ দেওয়ার কারণে স্রোত বাধাগ্রস্ত হয়ে পলি পড়ে নদীর তলদেশ ভরাট হচ্ছে। এছাড়া মাছের ছোট ছোট পোনা ধরার কারণে বিলীন হচ্ছে দেশীয় প্রজাতির মাছ। নদী ও দেশীয় প্রজাতির মাছ রক্ষায়  এই অভিযান চালানো হয়। অভিযান অব্যাহত থাকবে।

উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) আয়ুব আলি ও ক্ষেত্র সহকারী হদিবুল হাসান সুজন এসময় উপস্থিত ছিলেন। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা