kalerkantho

মঙ্গলবার । ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭। ২৪ নভেম্বর ২০২০। ৮ রবিউস সানি ১৪৪২

আইইউবিএটির সিম্পোজিয়ামে বক্তারা

করোনা-পরবর্তী পর্যটন উন্নয়নে তরুণ-যুবাদের প্রশিক্ষণ দিতে হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৮ অক্টোবর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



পর্যটন খাতে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ করে আর্থ-সামাজিক অবস্থার উন্নতি সম্ভব। এ জন্য তরুণ-যুবসমাজকে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ করে তুলতে হবে। একই সঙ্গে যুগোপযোগী ও মানসম্মত পর্যটনসেবা নিশ্চিত করতে হবে। এসব উদ্যোগের মাধ্যমে করোনার ক্ষতি পুষিয়ে পর্যটন খাতের উন্নয়নে সুদূরপ্রসারী ভূমিকা রাখা সম্ভব। তবে এর জন্য সরকারি-বেসরকারি খাতকে এগিয়ে আসতে হবে।

ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস অ্যাগ্রিকালচার অ্যান্ড টেকনোলজির (আইইউবিএটি) ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট অনুষদের আয়োজনে আন্তর্জাতিক সিম্পোজিয়ামে বক্তারা এমন অভিমত তুলে ধরেন। করোনা-পরবর্তী ট্যুরিজমের সমস্যা ও সম্ভাবনা নিয়ে ‘কারেন্ট ইস্যু ইন ট্যুরিজম’ শীর্ষক দুই দিনব্যাপী এ ই-সিম্পোজিয়াম গত শুক্রবার উদ্বোধন করেন আইইউবিএটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. আব্দুর রব। আয়োজনের সমাপনী দিনে গতকাল শনিবার বক্তারা করোনা-পরবর্তী সময়ে বিশ্বে পর্যটনের বিকাশ ও উন্নয়নের গুরুত্ব তুলে ধরেন।

সিম্পোজিয়ামে পাঁচটি মহাদেশের ১২টি দেশের ট্যুরিজমের স্কলাররা অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেওয়ার পাশাপাশি তাঁদের প্রেজেন্টেশন উপস্থাপন করেন। এ ছাড়া বিভিন্ন দেশের ২৮৪ জন নিবন্ধিত অংশগ্রহণকারী এতে যুক্ত ছিলেন।

সিম্পোজিয়ামটি সঞ্চালনা করেন আইইউবিএটির কলেজ অব ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ইউসুফ হোসেন খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন আইইউবিএটির উপ-উপাচার্য অধ্যাপক হামিদা আখতার বেগম। মিডিয়া পার্টনার হিসেবে ছিল কালের কণ্ঠ।

অতিথিদের মধ্যে বক্তব্য দেন অধ্যাপক ড. কলিন মাইকেল হল, ইউনিভার্সিটি অব ক্যান্টারবুরি, নিউজিল্যান্ড; অধ্যাপক ড. মিখাইল তোয়ানুগ্লু, ওসং ইউনিভার্সিটি, দক্ষিণ কোরিয়া; অধ্যাপক ড. নোয়েল স্কট, ইউনিভার্সিটি অব দ্য সানসাইন কোস্ট, অস্ট্রেলিয়া; অধ্যাপক ড. সারি, আন্দালাস ইউনিভার্সিটি, ইন্দোনেশিয়া; অধ্যাপক ড. ইয়ানা ওয়েনগেল, হাইনান ইউনিভার্সিটি, চীন; অধ্যাপক ড. এরদোগান একিজ, মোহাম্মদ সিক্স পলিটেকনিক ইউনিভার্সিটি, মরক্কো; অধ্যাপক ড. জিৎ দোগরা, ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব ট্যুরিজম অ্যান্ড ট্রাভেল ম্যানেজমেন্ট, ভারত; প্রফেসর ড. দিমিত্রিওস বুহালিস, ব্রুনমাউথ ইউনিভার্সিটি, যুক্তরাজ্য; প্রফেসর ড. চিহান চোবানোগ্লু, সাউথ ফ্লোরিডা ইউনিভার্সিটি, যুক্তরাষ্ট্র; প্রফেসর ড. আলফনসো ভারগাস সানচেজ, ইউনিভার্সিটি অব হুয়েলভা, স্পেন; প্রফেসর ড. ছেলিয়া রামোস, ইউনিভার্সিটি অব আলগার্ভ, পর্তুগাল; প্রফেসর ড. আইসেন এরকান ইস্তিন, ইউনিভার্সিটি অব শিরনাক, তুরস্ক এবং বাংলাদেশ থেকে পাটা চেয়ারম্যান শাহিদ হামিদ ও হোটেল সিক্স সিজনের জেনারেল ম্যানেজার মো. আল আমীন।

স্বাগত বক্তব্য দেন ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট অনুষদের সহকারী অধ্যাপক ও কো-অর্ডিনেটর ফারজানা আল ফেরদৌস। এ ছাড়া পর্যটনের বর্তমান প্রেক্ষাপটসহ নানা বিষয় নিয়ে বক্তব্য দেন ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট অনুষদের চেয়ারম্যান সহকারী অধ্যাপক শেখ এরশাদ হোসেন।

মন্তব্য