kalerkantho

বুধবার । ১২ মাঘ ১৪২৮। ২৬ জানুয়ারি ২০২২। ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

লোয়াবের নেতৃত্বে আবারও আজম জে চৌধুরী ও শায়ান এফ রহমান

অভিনন্দন জানালেন বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফিয়াত সোবহান

বাণিজ্য ডেস্ক   

১৫ ডিসেম্বর, ২০২০ ২১:০৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



লোয়াবের নেতৃত্বে আবারও আজম জে চৌধুরী ও শায়ান এফ রহমান

এলপিজি ওপারেটর্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (লোয়াব) সভাপতি পদে আবারও নির্বাচিত হয়েছেন আজম জে চৌধুরী। একইসঙ্গে সহ-সভাপতি পুননির্বাচিত হয়েছেন শায়ান এফ রহমান। আগামী দুই বছর তারা সংগঠনটির নেতৃত্ব দেবেন।

নির্বাচন আগে অনুষ্ঠিত হলেও আজ মঙ্গলবার লোয়াবের দ্বিতীয় বার্ষিক সাধারণ সভার (এজিএম) ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মে অনুমোদিত হয়।

বিজ্ঞাপন

নতুন সভাপতি ও সহ-সভাপতিকে অভিনন্দন জানিয়েছে বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস-চেয়ারম্যান সাফিয়াত সোবহান।  

বিদায়ী কমিটির সব সদস্যই সংগঠনের নির্বাহীর কমিটির সদস্য পুননির্বাচিত হয়েছেন। লোয়াবের প্রাথমিক লক্ষ্য হচ্ছে এলপিজির পুরো সক্ষমতা কাজে লাগিয়ে দেশের জ্বালানি খাতকে সমৃদ্ধ করা। একইসঙ্গে এ খাতে কমপ্লায়েন্স ও ব্যবসায়িক সততা অনুস্বরণ করে দেশে নিরাপদ জ্বালানি নিশ্চিত করা। আজম জে চৌধুরী ইস্ট-কোস্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান। দেশের অন্যতম বৃহৎ এ শিল্পগ্রুপ গত তিনদশক ধরে বৈচিত্রময় ব্যবসার মধ্যদিয়ে অর্থনীতিতে অবদান রেখে যাচ্ছে। অন্যদিকে শায়ান এফ রহমান বেক্সিমকো এলপিজি (ইউনিট-১) লিমিটেডের চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

সভাপতি পুননির্বাচিত করায় লোয়াবের সব সদস্যকে ধন্যবাদ জানিয়ে আজম জে চৌধুরী বলেন, এলপিজি খাতে কঠোরভাবে কমপ্লায়েন্স নিশ্চিত করবে সংগঠন এবং দেশজুড়ে ভ্যালু চেইন প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে এলপিজি ব্যবসার উন্নয়ন ঘটানো হবে।

তিনি আরো বলেন, এলপিজি শিল্প হচ্ছে একটি সেবা খাত, সুতরাং এ খাতের ব্যবসায়ীদের বাধ্যবাধকতা রয়েছে দেশের যেকোনো প্রান্তের গ্রাহককে সাশ্রয়ী মূল্যে নিরবিচ্ছিন্ন এলপিজি সরবরাহ করা।

প্রতিক্রিয়ায় শায়ান এফ রহমান আশ্বস্ত করেন বাংলাদেশের ভবিষ্যত জ্বালানি সম্ভাবনায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে এলপিজি খাত। তিনি বলেন, এলপিজির ব্যবহার রান্না ও অটোগ্যাস থেকে শুরু করে মেরিন জ্বালানি ও বিদ্যুত উৎপাদন পর্যন্ত বিস্তৃত করা হবে।



সাতদিনের সেরা