kalerkantho

রবিবার । ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ । ১০ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ২৮ সফর ১৪৪৪

ফেসবুক কর্তৃপক্ষ মেটার ওয়েবিনার

দেশের বিশেষজ্ঞরা দেশীয় ‘সন্ত্রাসী কনটেন্ট’ শনাক্ত করছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৮ জুন, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ফেসবুকে বাংলাদেশের সন্ত্রাসী কনটেন্ট শনাক্ত করতে বাংলাদেশিরাই কাজ করছেন। গতকাল সোমবার ফেসবুকের মূল প্রতিষ্ঠান মেটা ‘ফাইটিং টেররিজম অ্যান্ড অর্গানাইজড হেট অ্যান্ড মেটাস অ্যাপ্রোচ’ শীর্ষক এক ওয়েবিনারের আয়োজন করে। এতে মেটা কর্তৃপক্ষ ওই দাবি করে।

ওয়েবিনারে মেটা জানায়, বাংলা ভাষা, সংস্কৃতি, বাজার বোঝেন এমন বাংলাদেশি বিশেষজ্ঞরা কাজ করছেন।

বিজ্ঞাপন

এ ছাড়া মেটার প্রযুক্তি ও অ্যালগরিদমও এ ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখছে। মেটার অ্যালগরিদম অনেক পোস্ট ধরতে পারে। বিতর্কিত পোস্ট বিষয়ে ব্যবহারকারীরাও রিপোর্ট করতে পারেন। বাংলাদেশের সাংবাদিকসহ বিভিন্ন ব্যবহারকারীর রিপোর্ট বিবেচনা করা হয়।

ওয়েবিনারে এশীয় প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে প্রযুক্তি জায়ান্ট মেটার কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ডেঞ্জারাস অর্গানাইজেশন বিভাগের প্রধান নওয়াব ওসমান বলেন, ‘সন্ত্রাসী সংগঠনের প্রশংসা করে দেওয়া পোস্ট সরিয়ে ফেলা হয়। রাজনৈতিক পোস্টের জন্যও এখন ফেসবুকের নীতিমালা রয়েছে। সন্ত্রাসী কনটেন্টের ধরন বদলে গেছে। তবে আমরা সিদ্ধান্ত নেওয়ার প্রক্রিয়া উন্নত করেছি। এশীয় প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে ফেসবুকে সন্ত্রাসবাদ ঠেকাতে তিনটি কর্মসূচি রয়েছে। এগুলো হলো সার্চ রিডাইরেক্ট, কারেজ প্রজেক্ট ও রিজিলেন্সি ইনিশিয়েটিভ। ’

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমাদের প্ল্যাটফরমে (ফেসবুক) বাংলাদেশের ক্ষেত্রে যা দেখা যাচ্ছে, তা এখানকার (বাংলাদেশ) অফলাইন বাস্তবতারই প্রতিফলন। ’

 



সাতদিনের সেরা