kalerkantho

মঙ্গলবার । ৩ কার্তিক ১৪২৮। ১৯ অক্টোবর ২০২১। ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

স্বাস্থ্যবিধির দোহাই দিয়ে হল বন্ধ অযৌক্তিক

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্বাস্থ্যবিধির দোহাই দিয়ে হল বন্ধ অযৌক্তিক

ক্যাম্পাস খোলার দাবিতে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন। গতকাল কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে। ছবি : কালের কণ্ঠ

এ মাসের মধ্যেই ক্যাম্পাস ও আবাসিক হলগুলো খুলে দেওয়াসহ বিভিন্ন দাবিতে মানববন্ধন করেছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষার্থীরা। গতকাল রবিবার সকাল ১১টার দিকে কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে এই কর্মসূচি পালন করেন তাঁরা। এ সময় স্বাস্থ্যবিধির দোহাই দিয়ে ক্যাম্পাস, আবাসিক হলগুলো বন্ধ রাখা প্রশাসনের অযৌক্তিক সিদ্ধান্ত বলে মন্তব্য করেন শিক্ষার্থীরা। শেষে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করেন তাঁরা।

শিক্ষার্থীদের অন্য দাবিগুলো হলো, ভর্তি পরীক্ষার সময় মেস মালিকরা যেন মেসের শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় না করে সে ব্যবস্থা নেওয়া এবং ক্যাম্পাসেই ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণের ব্যবস্থা করা।

মানববন্ধন চলাকালে চারুকলা অনুষদের শিক্ষার্থী শাকিলা খাতুন বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের বেশ কিছু বিভাগ পরীক্ষা নিচ্ছে। এ মাসেই আরো কিছু বিভাগের পরীক্ষা শুরু হবে। ফলে মেসে শিক্ষার্থীদের সিট সংকট তৈরি হয়েছে। শিক্ষার্থীরা মেসে গাদাগাদি করে থাকছে। এতে স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়ছে। অথচ হল খোলা থাকলে শিক্ষার্থীরা আরো নিরাপদে থাকতে পারবে। স্বাস্থ্যবিধির দোহাই দিয়ে প্রশাসন যে হল বন্ধ রেখেছে, তা কোনোভাবেই যৌক্তিক নয়। পরীক্ষার তারিখ ঘোষণার সঙ্গে প্রশাসনের উচিত ছিল হল খোলার সিদ্ধান্ত নেওয়া।’

গণিত বিভাগের শিক্ষার্থী আবুল কালাম আজাদ বলেন, ‘বেশির ভাগ বিভাগের পরীক্ষা শুরু হওয়ায় শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে চলে এসেছে। কিন্তু এর পরও ক্যাম্পাস ও হল বন্ধ রাখা হয়েছে, যা সম্পূর্ণ অযৌক্তিক।’

মানববন্ধন শেষে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ক্যাম্পাস ঘোরেন। পরে তাঁরা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন।

শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনা শেষে উপাচার্য অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তার বলেন, ‘আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিলের সভা আছে। সভায় হল ও ক্যাম্পাস খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে পারব।’



সাতদিনের সেরা