kalerkantho

রবিবার । ২৮ আষাঢ় ১৪২৭। ১২ জুলাই ২০২০। ২০ জিলকদ ১৪৪১

রাজশাহীর আম বাজারে আসবে ১৫ মের পর

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

৯ মে, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পরিপক্ব ও রাসায়নিকমুক্ত আম বাজারজাতকরণ নিশ্চিত করতে এবারও রাজশাহীতে আম পাড়ার সময়সীমা বেঁধে দিয়েছে জেলা প্রশাসন। সে অনুযায়ী আগামী ১৫ মের আগে রাজশাহীতে কোনো ধরনের আম পাড়া যাবে না।

১৫ মে থেকে পাড়া যাবে শুধু ‘গুটি’ বা ‘আঁটি’ জাতের আম। গোপালভোগসহ অন্যান্য জাতের আম পাড়া যাবে ২০ মের পর পর্যায়ক্রমে। সে ক্ষেত্রেও নির্দিষ্ট সময়সীমা মেনেই আম বাজারজাত করতে হবে।

গত বৃহস্পতিবার জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে এ সময়সীমা বেঁধে দেওয়া হয়। এর আগে আম চাষি ও ব্যবসায়ীদের সঙ্গে আলোচনা করে নেয় জেলা প্রশাসন।

এ নির্দেশনার বাইরে গিয়ে কোনো ব্যবসায়ী বা আম চাষি আম বাজারজাত করলে এবং বাজারজাতের চেষ্টা করলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। গত কয়েক বছরের মতো সুষ্ঠুভাবে বাজারজাত করতে এবং রাসায়নিকমুক্ত আম সরবরাহ নিশ্চিত করতে মাঠে থাকবে প্রশাসনের বিশেষ দল।

বেঁধে দেওয়া সময় অনুযায়ী ‘গোপালভোগ’ জাতের আম আগামী ২০ মে থেকে, লক্ষ্মণভোগ ২৫ মে থেকে, রানিপছন্দ ২৫ মে থেকে, হিমসাগর ২৮ মে থেকে, ল্যাংড়া ৬ জুন থেকে, আম্রপালি ও ফজলি ১৫ জুন থেকে এবং আশ্বিনা ও বারি-৪ জাতের আম ১০ জুলাই থেকে পাড়া যাবে।

চাহিদার কারণে অসাধু ব্যবসায়ীরা সময়সীমার আগেই অপরিপক্ব আম গাছ থেকে পেড়ে রাসায়নিক দিয়ে পাকিয়ে বাজারজাত করত। এতে একপর্যায়ে রাজশাহীর আমের সুনাম নষ্ট হতে থাকে। বাজার হারাতে থাকে রাজশাহীর আম। ফলে প্রকৃত ব্যবসায়ীরাও লোকসানের মুখে পড়তে শুরু করেন। এ অবস্থায় সারা দেশে পোক্ত ও রাসায়নিকমুক্ত আম বাজারজাত করার জন্য কয়েক বছর ধরে আম পাড়ার সময়সীমা বেঁধে দিচ্ছে রাজশাহী জেলা প্রশাসন। এতে সুফল পাওয়া গেছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা