kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৫ আষাঢ় ১৪২৭। ৯ জুলাই ২০২০। ১৭ জিলকদ ১৪৪১

জামালপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের গাড়ি ভাঙচুর

জামালপুর প্রতিনিধি   

২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জামালপুরের রানীগঞ্জ যৌনপল্লীতে মাদকবিরোধী অভিযান পরিচালনার সময় এক মাদক কারবারিকে আটকের ঘটনাকে কেন্দ্র করে ভ্রাম্যমাণ আদালতের গাড়িবহরে হামলার ঘটনা ঘটেছে। গতকাল সোমবার দুপুরের এ ঘটনায় যৌনপল্লীর ২০-২৫ জনের বিরুদ্ধে জামালপুর সদর থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উদ্যোগে গতকাল দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে রানীগঞ্জ যৌনপল্লীতে মাদকবিরোধী অভিযান চালায় জেলা টাস্কফোর্স। জেলা প্রশাসনের নির্বাহী হাকিম মো. আবু আব্দুল্লাহ খানের নেতৃত্বে এ অভিযানে বংশখালের গলি থেকে মাদক কারবারি আ. হালিমকে আটক করা হয়। পরে তাঁকে নিয়ে যৌনপল্লীর সর্দারনী কবিতার ঘরে মাদক উদ্ধারে অভিযান চালান ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় যৌনকর্মীদের সঙ্গে টাস্কফোর্স সদস্যদের বাগিবতণ্ডা শুরু হয়। একপর্যায়ে উত্তপ্ত পরিস্থিতির সৃষ্টি হলে যৌনকর্মীরা হামলা চালানোর চেষ্টা করে এবং টাস্কফোর্স সদস্যরা বন্দুকের বাঁট দিয়ে যৌনকর্মীদের পিটিয়ে ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এতে ছয়-সাতজন যৌনকর্মী আহত হয়। একপর্যায়ে টাস্কফোর্সের পুলিশ কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে যৌনপল্লী থেকে বেরিয়ে যাওয়ার জন্য গাড়িতে ওঠে। এ সময় বিক্ষুব্ধ যৌনকর্মীরা ভ্রাম্যমাণ আদালতের গাড়ির বহরে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করলে মাইক্রোবাসের পেছনের কাঁচ গুঁড়িয়ে যায়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা