kalerkantho

শনিবার । ১৬ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ৪ রজব জমাদিউস সানি ১৪৪১

জীববিজ্ঞান ও রসায়নের জ্ঞানমূলক প্রশ্ন

২৫ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৫ মিনিটে



জীববিজ্ঞান

১। শ্রেণিবিন্যাসের জনক কে?

উত্তর : সুইডিস বিজ্ঞানী ক্যারোলাস লিনিয়াস।

২। ট্যাক্সোনমি কী?

উত্তর : জীববিজ্ঞানের যে শাখায় শ্রেণিবিন্যাসের রীতিনীতি নিয়ে আলোচনা করা হয় তাকে ট্যাক্সোনমি বলে।

৩। মৌমাছির বৈজ্ঞানিক নাম কী?

উত্তর : Apis indica

৪। হিস্টোলজি কী?

উত্তর : ভৌত জীববিজ্ঞানের যে শাখায় জীবদেহের টিস্যুসমূহের গঠন, বিন্যাস ও কাজ নিয়ে আলোচনা করা হয়, তাকে হিস্টোলজি বলে।

৫। হরমোন কী?

উত্তর : অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি থেকে নিঃসৃত রসকে হরমোন বলে।

৬। ক্যারিওকাইনেসিস কী?

উত্তর : মাইটোসিস কোষ বিভাজনের যে প্রক্রিয়ায় নিউক্লিয়াসের বিভাজন ঘটে, তাকে ক্যারিওকাইনেসিস বলে।

৭। লোকাস কাকে বলে?

উত্তর : ক্রমোজমের যে স্থানে জিন থাকে, তাকে লোকাস বলে।

৮। কাইম কাকে বলে?

উত্তর : পাকস্থলীর সংকোচন ও প্রসারণ এবং এনজাইমের ক্রিয়ার ফলে খাদ্য মণ্ডে পরিণত হয়, আর এই খাদ্যমণ্ডকে কাইম বলে।

৯। ধমনি কী?

উত্তর : যেসব রক্তনালি  হৃিপণ্ড থেকে অক্সিজেনযুক্ত রক্ত সারা দেহে বহন করে তাদের ধমনি বলে।

১০। রক্তচাপ কী?

উত্তর : রক্তপ্রবাহের সময় ধমনির গায়ে যে চাপ সৃষ্টি হয়, তাকে রক্তচাপ বলে।

১১। লিউকেমিয়া কী?

উত্তর : রক্তকোষে ক্যান্সারকে লিউকেমিয়া বলে।

১২। নিউমোনিয়া রোগের জীবাণুর নাম কী?

উত্তর : Pneumococcus নামের ব্যাকটেরিয়া।

১৩। হাইলাস কী?

উত্তর : বৃক্কের অবতল অংশের ভাঁজকে হাইলাস বলে।

১৪। কিডনি সংযোজন কী?

উত্তর : কোনো ব্যক্তির কিডনি যখন অকেজো হয়ে পড়ে তখন সুস্থ ব্যক্তির কিডনি তার দেহে প্রতিস্থাপন করাই হলো কিডনি সংযোজন।

১৫। ফিটাস কী?

উত্তর : জাইগোট সৃষ্টি হওয়ার প্রায় আট সপ্তাহ পরের ভ্রূণকে ফিটাস বলা হয়।

১৬। ভার্নালাইজেশন কী?

উত্তর : শৈত্য প্রবাহের মাধ্যমে উদ্ভিদের ফুল ধারণকে ত্বরান্বিত করার পদ্ধতিকে ভার্নালাইজেশন বলে।

১৭।  সিন্যাপস কী?

উত্তর : একটি নিউরনের অ্যাক্সনের সঙ্গে দ্বিতীয় নিউরনের ডেনড্রাইট যুক্ত থাকার সংযোগস্থলকে সিন্যাপস বলে।

১৮। ফুল কী?

উত্তর : উদ্ভিদের প্রজননের জন্য রূপান্তরিত বিশেষ ধরনের বিটপই ফুল।

১৯। প্রকট বৈশিষ্ট্য কী?

উত্তর : মাতা-পিতা থেকে প্রথম বংশধরে জীবের যে বৈশিষ্ট্য প্রকাশ পায়, তাকে প্রকট বৈশিষ্ট্য বলে।

২০। প্ল্যাংকটন কী?

উত্তর : পানিতে ভাসমান ক্ষুদ্র জীবদের প্ল্যাংকটন বলে।

রসায়ন

১। রসায়নে অনুসন্ধান বা গবেষণা প্রক্রিয়ার প্রথম ধাপ কী?

উত্তর : বিষয়বস্তু নির্ধারণ।

২। দহন বিক্রিয়া কী?

উত্তর : কোনো মৌল বা যৌগকে বাতাসের অক্সিজেনের উপস্থিতিতে পুড়িয়ে তার উপাদান মৌলের অক্সাইডে পরিণত করার প্রক্রিয়াকে দহন বিক্রিয়া বলে।

৩। তড়িৎ প্রলেপন কী?

উত্তর : তড়িৎ বিশ্লেষণের মাধ্যমে একটি ধাতুর ওপর অন্য ধাতুর প্রলেপ দেওয়াকে ইলেকট্রোপ্লেটিং বা তড়িৎ প্রলেপন বলে।

৪। তড়িৎ বিশ্লেষ্য কোষ কী?

উত্তর : যে কোষে বাইরের কোনো উৎস থেকে তড়িৎ প্রবাহিত করে কোষের মধ্যে রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটানো যায়, সেই কোষকে তড়িৎ বিশ্লেষ্য কোষ বলে।

৫। অ্যালকাইল মূলক কী?

উত্তর : অ্যালকেন থেকে একটি হাইড্রোজেন পরমাণু অপসারণ করলে যে একযোজী মূলকের সৃষ্টি হয় তাকে অ্যালকাইল মূলক বলে।

৬। গ্যালভানিক কোষ কী?

উত্তর : যে কোষে রাসায়নিক বিক্রিয়া ঘটিয়ে তড়িৎ উৎপন্ন করা হয়, তাকে গ্যালভানিক কোষ বলে।

৭। ব্লিচিং পাউডারের সংকেত লেখো।

উত্তর : Cl(OCl)Cl

৮। স্থ্থূল সংকেত কী?

উত্তর : যে সংকেত দিয়ে অণুতে বিদ্যমান পরমাণুগুলোর অনুপাত প্রকাশ করে, তাকে স্থ্থূল সংকেত বলে।

৯। জারণ সংখ্যা কী?

উত্তর : অণু বা যৌগমূলকের মধ্যে অবস্থিত কোনো পরমাণুর ধনাত্মক বা ঋণাত্মক চিহ্নযুক্ত সংখ্যাকে জারণ সংখ্যা বলে।

১০। লিমিটিং বিক্রিয়ক কী?

উত্তর : রাসায়নিক বিক্রিয়ায় যে বিক্রিয়ক বিক্রিয়া করে শেষ হয়ে যায়, সেই বিক্রিয়ককে লিমিটিং বিক্রিয়ক বলে।

১১। প্রতিস্থাপন বিক্রিয়া কাকে বলে?

উত্তর : কোনো অধিক সক্রিয় মৌল বা যৌগমূলক অপর কোনো কম সক্রিয় মৌল বা যৌগমূলককে প্রতিস্থাপন করে নতুন যৌগ উৎপন্ন করার প্রক্রিয়াকে প্রতিস্থাপন বিক্রিয়া বলে।

১২। রক্তের লিউকেমিয়া রোগের চিকিৎসায় কোন আইসোটোপ ব্যবহার করা হয়?

উত্তর : 32P-এর ফসফেট ব্যবহার করা হয়।

১৩। সমযোজী বন্ধন কাকে বলে?

উত্তর : ইলেকট্রন শেয়ারের মাধ্যমে যে রাসায়নিক বন্ধন গঠিত হয়, তাকে সমযোজী বন্ধন বলে।

১৪। মোলার দ্রবণ কী?

উত্তর : একটি নির্দিষ্ট তাপমাত্রায় ১ লিটার দ্রবণের মধ্যে যদি এক মোল দ্রব দ্রবীভূত থাকে তবে ওই দ্রবণকে মোলার দ্রবণ বলে।

১৫। আয়নিকরণ শক্তি কী?

উত্তর : গ্যাসীয় অবস্থায় কোনো মৌলের এক মোল গ্যাসীয় পরমাণু থেকে এক মোল ইলেকট্রন অপসারণ করে এক মোল ধনাত্মক আয়নে পরিণত করতে যে শক্তির প্রয়োজন হয়, তাকে ওই মৌলের আয়নিকরণ শক্তি বলে।

১৬। ব্যাপন কী?

উত্তর : কোনো মাধ্যমে কঠিন, তরল বা বায়বীয় পদার্থের স্বতঃস্ফূর্ত ও সমভাবে ছড়িয়ে পড়ার প্রক্রিয়াকে ব্যাপন বলে।

১৭। গলন কী?

উত্তর : তাপ প্রয়োগে পদার্থের কঠিন অবস্থা থেকে তরল অবস্থায় রূপান্তর করার প্রক্রিয়াকে গলন বলে।

১৮। আইসোটোপ কী?

উত্তর : যেসব পরমাণুর প্রোটন সংখ্যা সমান কিন্তু ভরসংখ্যা ও নিউট্রন সংখ্যা ভিন্ন তাদের একে অপরের আইসোটোপ বলে।

১৯। নিঃসরণ কী?

উত্তর : সরু ছিদ্রপথে উচ্চচাপের স্থান থেকে কোনো গ্যাস নিম্নচাপের স্থানের দিকে সজোরে বেরিয়ে আসার প্রক্রিয়াকে নিঃসরণ বলে।

২০। বদ্ধ শিকল হাইড্রোকার্বন কী?

উত্তর : যেসব হাইড্রোকার্বনের কার্বন শিকলের দুই প্রান্তের কার্বন পরস্পর যুক্ত হয়ে একটি বলয় বা চক্র গঠন করে, তাকে বদ্ধ শিকল হাইড্রোকার্বন বলে।

সংকলন : জুবায়ের আহম্মেদ

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা