kalerkantho

শনিবার। ২ মাঘ ১৪২৭। ১৬ জানুয়ারি ২০২১। ২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

সেরা ১০

মঞ্চ, চলচ্চিত্র ও টিভিতে আলী যাকেরের সেরা ১০ পারফরম্যান্স

২৮ নভেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



সেরা ১০

‘দেওয়ান গাজীর কিস্সা’য় আলী যাকের

বুড়ো শালিকের ঘাড়ে রোঁ [১৯৭২] : নাগরিক নাট্য সম্প্রদায়ের প্রথম নাটক। মাইকেল মধুসূদন দত্তের প্রহসনটির নির্দেশক আতাউর রহমান। নাটকের ‘গদা’ চরিত্রে আলী যাকেরের অভিনয় দেখতে হুমড়ি খেয়ে পড়েছিল দর্শক।

 

দেওয়ান গাজীর কিস্সা [১৯৭৭] : বের্টল্ট ব্রেখটের ‘মিস্টার পুনটিলা অ্যান্ড হিজ ম্যান মাটি’ অবলম্বনে নাটকটি অনুবাদ ও নির্দেশনা দেন আসাদুজ্জামান নূর। ৩০ পেরুনো আলী যাকের এখানে ষাটোর্ধ্ব দেওয়ান গাজীর চরিত্র করেন। ২০০৩ সালে নাটকটির ৪০০তম প্রদর্শনীর পর বন্ধ হয়ে যায়। এক যুগ পর ২০১৫ সালে ফের মঞ্চে আসে নাটকটি। এবারও দেওয়ান গাজী হন আলী যাকের।

 

‘ম্যাকবেথ-এ আলী যাকের

ম্যাকবেথ [১৯৮০] : উইলিয়াম শেকসপিয়ারের ‘ম্যাকবেথ’-এর অনুবাদ করেন সৈয়দ শামসুল হক। নাগরিক নাট্য সম্প্রদায় ও থিয়েটার যৌথভাবে মঞ্চে আনে নাটকটি। নির্দেশনা দেন ক্রিস্টোফার স্যানফোর্ড। নাটকে ম্যাকবেথ হন আলী যাকের, লেডি ম্যাকবেথ ফেরদৌসী মজুমদার।

 

নূরলদীনের সারা জীবন [১৯৮২] : ইংরেজ শোষণ ও নির্যাতনের বিরুদ্ধে ১৭৮২-৮৩ সালে রংপুরের কৃষক বিদ্রোহের নেতৃত্ব দেন কৃষক নূরউদ্দিন। সৈয়দ শামসুল হক তাঁর এই কাব্যনাট্যে তাঁর নাম দেন রংপুরের ভাষায় নূরলদীন। নির্দেশক আলী যাকের, নূরলদীন চরিত্রেও অভিনয় করেন তিনি। প্রযোজনাটি ঢাকার মঞ্চের অন্যতম সেরা নাটক।

 

গ্যালিলিও : বের্টল্ট ব্রেখটের ‘গ্যালিলিও’ অনুবাদ করেছেন আবদুস সেলিম। নাটকটি দু্ইবার মঞ্চে আনে নাগরিক। প্রথম বার নব্বইয়ের দশকে, পরের বার ২০১৮ সালে। প্রথম বার নির্দেশক ছিলেন আতাউর রহমান, দ্বিতীয় বার পান্থ শাহরিয়ার। তবে দুইবারই মঞ্চে অভিনয় করেছেন আলী যাকের।

 

বহুব্রীহি [১৯৮৮] : হুমায়ূন আহমেদের জনপ্রিয় এ ধারাবাহিক নাটকের প্রযোজক নওয়াজিশ আলী খান। ধারাবাহিকটির ‘মামা’ চরিত্রে আলী যাকেরের সরস অভিনয় এখনো মনে রেখেছে অনেক দর্শক।

 

নদীর নাম মধুমতি [১৯৯৫] : তানভীর মোকাম্মেলের এই চলচ্চিত্রে শান্তি কমিটির চেয়ারম্যান মোতালেব মোল্লার চরিত্রে দারুণ অভিনয় করেন আলী যাকের। একই পরিচালকের ‘লাল সালু’, ‘রাবেয়া’ এবং স্বল্পদৈর্ঘ্য ‘হুলিয়া’তেও অভিনয় করেছিলেন।

 

আজ রবিবার [১৯৯৯] : হুমায়ূন আহমেদের জনপ্রিয় এ ধারাবাহিক নাটকের পরিচালক মনির হোসেন জীবন। এখানে ‘বড় চাচা’ আসগরের চরিত্রেও সরস অভিনয় করে দর্শকমন কাড়েন আলী যাকের। তিন বছর আগে ভারতের স্টার প্লাসে হিন্দিতে পুনঃপ্রচারিত হয়েছিল ধারাবাহিকটি।

 

গণি মিয়ার পাথর [১৯৯৭] : সৈয়দ মঞ্জুরুল আলমের রচনায় প্যাকেজ নাটকটির পরিচালক আবুল হায়াত। অসৎ ব্যবসায়ী গণি ব্যাপারীর চরিত্রে আলী যাকেরের অভিনয় বেশ পছন্দ করেছে দর্শক।

 

ঘোড়সওয়ারের স্বপ্ন [২০০৫] : দুজন অসম মানুষের বন্ধুত্বের গল্প নিয়ে আব্দুল্লাহ রানার একক নাটক। প্রধান চরিত্রে আলী যাকের ও রওনক হাসান। নাগরিক নাট্য সম্প্রদায়ের তরুণ কর্মী রওনক এই টিভি নাটকের মাধ্যমে প্রথমবার প্রধান চরিত্রে হাজির হয়েছেন। সে বছর দুজনই পুরস্কৃত হয়েছেন নাটকটির জন্য।

মন্তব্য