kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৯ নভেম্বর ২০২২ । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

১৫ তারিখ চালু হচ্ছে ইভ্যালি

আগের মতো অফারে ব্যবসা করবে না

ইভ্যালি চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের সংবাদ সম্মেলন

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৭ অক্টোবর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



আগের মতো অফার নয়, আকর্ষণীয় দামে এবং প্রতিটি পণ্যে মুনাফা করেই বিক্রি করবে ইভ্যালি। আগামী এক বছর নিরবচ্ছিন্নভাবে ব্যবসা করতে পারলে প্রথম বিনিয়োগ থেকেই গ্রাহকদের সব দেনা পরিশোধ করা সম্ভব। প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে একটি ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান।

সংবাদ সম্মেলনে শামীমা নাসরিন বলেন, ‘ইভ্যালি মাল্টিবিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ তোলার সক্ষমতা রাখে।

বিজ্ঞাপন

বর্তমানে ইভ্যালিতে বিনিয়োগ পেতে সবচেয়ে জরুরি হচ্ছে একটি নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত বিজনেস করা এবং এটিকে একটি লাভজনক ও সম্ভাবনাময় খাত হিসেবে উপস্থাপন করা। ইভ্যালির ৪৫ লাখ ক্রেতা ও ৩০ হাজার বিক্রেতা দৈনন্দিন প্রয়োজনে নিয়মিত কেনাকাটা করলে সহজেই দেশি-বিদেশি বিনিয়োগ আসা সম্ভব। অনেকেই হয়তো অবগত আছেন, আগে ইভ্যালিতে বিনিয়োগের জন্য বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে আমরা কথা বলেছি। এরই ধারাবাহিকতায় বর্তমানে আমাদের সুষ্ঠুভাবে ব্যবসা পরিচালনা করার সুযোগ তৈরি হলে খুব সহজেই বিনিয়োগ আসা সম্ভব হবে বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস। ’

তিনি বলেন, ‘ব্যবসার কত টাকা কোথায় খরচ হয়েছে তার সব তথ্য আমাদের কাছে আছে। গ্রাহকদের দেনা-পাওনার পূর্ণাঙ্গ হিসাব বের করতে হলে আগে ইভ্যালির সার্ভার চালু করা প্রয়োজন। তাহলেই আগের অর্ডার করা পণ্য সরবরাহ করা সম্ভব। এ জন্য আমাদের প্রথমে সার্ভার খোলা জরুরি। সার্ভারের আইডি ও কোড একটি জটিল নম্বর। এটি মনে রাখা বা মুখস্থ করে রাখার বিষয় নয়। আমরা এ বিষয়ে অ্যামাজনের সঙ্গে যোগাযোগ করছি। যদি আমাদের সাবেক এমডি রাসেল বাইরে থাকতেন তাহলে বিষয়টি সহজ হতো। কিন্তু বর্তমানে তিনি কারাগারে থাকায় পুরো প্রক্রিয়া জটিল রূপ ধারণ করেছে। ’

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে শামীমা নাসরিন জানান, ২৫ কোটি টাকার পণ্য গোডাউনে রয়েছে। এই পণ্য দিয়ে অতীতের দায় মেটানো অসম্ভব। তবে গোডাউনে যা আছে, সার্ভার অন করার পর তা গ্রাহকদের সরবরাহ করা হবে। আগামী সপ্তাহে বোর্ড মিটিং হবে। একই সঙ্গে আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর ব্যবসা শুরু করা হবে। এবার আগের মতো অফার থাকবে না। তবে মার্কেটের সবচেয়ে আকর্ষণীয় অফার ও মূল্যে পণ্য বিক্রি করা হবে।

ইভ্যালি নতুন বিনিয়োগ পেয়েছে কি না, পেলে কত টাকা পেয়েছে—এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমাদের ইন্সিডেন্টের আগে (আটকের আগে) অনেক বিনিয়োগকারী যোগাযোগ করেছিল, তখন আলোচনা-পর্যালোচনা চালিয়েছি। পরে আমরা আটক হওয়ার পরও আমাদের কোর মেম্বারদের সঙ্গে তারা যোগাযোগ করেছে। আশা করছি, আমরা ব্যবসা শুরু করার পর যদি সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে পারি, তাহলে খুব সহজেই নতুন করে বিনিয়োগকারীরা আগ্রহ প্রকাশ করে এগিয়ে আসবেন। ’

 



সাতদিনের সেরা