kalerkantho

সোমবার  । ১২ আশ্বিন ১৪২৮। ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৯ সফর ১৪৪৩

সংক্ষিপ্ত

বাবাকে নির্যাতনের অভিযোগে দুই ছেলে আটক

রাঙ্গাবালী (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি   

১৯ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালীতে বাবাকে নির্যাতনের অভিযোগে তিন ছেলে ও পুত্রবধূর নামে মামলা হয়েছে। এই ঘটনায় পুলিশ দুই ছেলেকে গ্রেপ্তার করেছে। এদিকে বাবাকে নির্যাতনের এই ঘটনা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। ভুক্তভোগী বাবার নাম দেলোয়ার ফরাজি (৭০)। তিনি দক্ষিণ চরমোন্তাজ গ্রামের বাসিন্দা। মামলার আসামিরা হলেন ফিরোজ ফরাজি (৩২), আলমাছ ফরাজি (৪৮), আজমল ফরাজি (৪০) ও আলমাছের স্ত্রী নাজমা বেগম। তিনি ইউনিয়ন পরিষদের সংরক্ষিত নারী সদস্য। ভিডিওতে দেখা যায়, বাড়ি থেকে বাবাকে টেনেহিঁচড়ে সড়কে ওঠাচ্ছেন ফিরোজ ফরাজি। তিনি বাবার পিঠ ও ঘাড় ধরে একের পর এক ধাক্কা মারছেন। গায়ের গেঞ্জিটাও টানতে টানতে ছিঁড়ে ফেলেন। পাশে কয়েকজন নারীও ছিলেন। তাঁদের মধ্যে এক নারীকে বলতে শোনা যায়, ‘ফিরোজ ভাই ছাড়েন।’ কিন্তু ফিরোজ কারো কথাই শোনেননি। দেলোয়ার ফরাজি বলেন, ‘হারুনের ঘরে অনেক বছর ধরে আমি থাকি। কিন্তু জমিসংক্রান্ত ঝামেলায় অন্য ছেলেরা তা পছন্দ করে না। ছোটখাটো ঘটনা নিয়ে ঝামেলা করে। ওই দিন ফিরোজ আমাকে বাড়ি থেকে বের করার জন্য অনেক মারছে। হাত, পা ও শরীরে এখনো দাগ আছে।’

পুলিশ সদর দপ্তরের এআই?জি (মি?ডিয়া অ্যান্ড পাব?লিক রি?লেশন্স) মো. সোহেল রানা জানান, একজন সচেতন নাগ?রিক বাংলা?দেশ পু?লি?শের মি?ডিয়া অ্যান্ড পাব?লিক রি?লেশন্স উইং?কে সামা?জিক যোগা?যোগ মাধ্যমের এক?টি লিংক পাঠান। লিং?কের ভি?ডিও?তে দেখা যায়, এক বৃদ্ধ বাবাকে শারী?রিকভা?বে নির্যাতন কর?ছেন তাঁর ছেলেরা। ভি?ডিও?টি পরে রাঙ্গাবা?লী থানার ও?সি দেওয়ান জগলুল হাসান?কে পাঠিয়ে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়। পরে পুলিশ গিয়ে ছেলেদের আটক করে নিয়ে আসে। 

পুলিশ সূত্র জানায়, আটক ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্র?ক্রিয়াধীন।



সাতদিনের সেরা