kalerkantho

শুক্রবার । ১৫ শ্রাবণ ১৪২৮। ৩০ জুলাই ২০২১। ১৯ জিলহজ ১৪৪২

রিট খারিজ, বাধা নেই নির্বাচনে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



রিট খারিজ, বাধা নেই নির্বাচনে

আগামী ২১ জুন অনুষ্ঠিতব্য লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচনকে কেন্দ্র করে পৃথক দুটি রিট আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্টের পৃথক দুটি বেঞ্চ। এর মধ্যে উপনির্বাচন স্থগিত চেয়ে বিএনপি নেতা আবুল খায়ের ভূঁইয়া এবং আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থীর মনোনয়নপত্রের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে মুসলিম লীগের প্রার্থী শেখ মো. ফয়েজ উল্লাহ শিপনের করা রিট আবেদন খারিজ করা হয়েছে। ফলে উপনির্বাচনে কোনো বাধা থাকল না বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

বিএনপি নেতার আবেদন খারিজ

আগামী ২১ জুন অনুষ্ঠিতব্য উপনির্বাচন স্থগিত চেয়ে একই আসনের সাবেক সংসদ সদস্য বিএনপি নেতা আবুল খায়ের ভূঁইয়ার দাখিল করা রিট আবেদন গতকাল সোমবার খারিজ করে দিয়েছেন বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার হাইকোর্ট বেঞ্চ। রিট আবেদনকারীপক্ষে আইনজীবী ছিলেন ব্যারিস্টার এ এম মাহবুব উদ্দিন খোকন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন ও রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল নওরোজ মো. রাসেল চৌধুরী। ২০১৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত নির্বাচনে শহিদ ইসলাম পাপুলের দাখিল করা হলফনামায় তথ্য গোপন এবং পরবর্তী সময়ে নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগে হাইকোর্টের নির্বাচনী ট্রাইব্যুনালে মামলা করেছিলেন আবুল খায়ের। মামলাটি এখনো বিচারাধীন। এই কারণে উপনির্বাচন স্থগিত চাওয়া হয়।

মুসলিম লীগের প্রার্থীর আবেদন খারিজ

উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থীর মনোনয়নপত্রের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে মুসলিম লীগের প্রার্থী শেখ মো. ফয়েজ উল্লাহ শিপনের দাখিল করা রিট আবেদন রবিবার খারিজ করেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ। রিট আবেদনকারীপক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট শেখ আওসাফুর রহমান বুলু। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার।

জাতীয় সংসদের লক্ষ্মীপুর-২ আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মোহাম্মদ শহিদ ইসলাম পাপুলের সদস্য পদ বাতিল করে এবং ওই আসন শূন্য ঘোষণা করে জাতীয় সংসদ সচিবালয় গত ২২ ফেব্রুয়ারি গেজেট জারি করে। পরবর্তী সময়ে নির্বাচন কমিশন ওই আসনে উপনির্বাচনের জন্য ৪ মার্চ তফসিল ঘোষণা করে। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী আগামী ২১ জুন ওই আসনে ভোটগ্রহণ। এ অবস্থায় পাপুলের সংসদ সদস্য পদ বাতিলের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে তাঁর বোনের দাখিল করা রিট আবেদন গত ৮ জুন খারিজ করেন বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়ার নেতৃত্বাধীন হাইকোর্ট বেঞ্চ।



সাতদিনের সেরা