kalerkantho

শুক্রবার । ১৪ কার্তিক ১৪২৭। ৩০ অক্টোবর ২০২০। ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

‘শুনেছি ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় খুব অনুতপ্ত’

কূটনৈতিক প্রতিবেদক   

১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘শুনেছি ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় খুব অনুতপ্ত’

বাংলাদেশকে না জানিয়ে ভারতের বাণিজ্য মন্ত্রণালয় হঠাৎ পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেওয়ায় দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় খুব অনুতপ্ত বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। গতকাল বৃহস্পতিবার ঢাকায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা জানান।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘শুনেছি যে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এতে খুব (পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ) অনুতপ্ত। কারণ তারাও জানত না যে হঠাৎ করে এটা বন্ধ হয়েছে।’ তিনি বলেন, ‘আমাদের একটি বোঝাপড়াও আছে যে এ ধরনের হঠাৎ সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে আমাদের জানানো প্রয়োজন। তাদের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় নাকি এটা (রপ্তানি বন্ধ) সম্পর্কে কিছুই জানত না।’

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মোমেনের সাম্প্রতিক তুরস্ক সফরে ওই দেশ থেকে বাংলাদেশে পেঁয়াজ আমদানি নিয়ে কোনো আলোচনা হয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি জানান, সরকারিভাবে আলোচনা হয়নি। তবে সেখান থেকে তিনি বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশিকে টেলিফোন করে জানতে চেয়েছিলেন, তুরস্কের সঙ্গে এ বিষয়ে আলোচনা করবেন কি না? এরপর বাণিজ্যমন্ত্রীর সম্মতিতে তিনি দেশটির বাংলাদেশ মিশনকে নির্দেশ দিয়েছেন, এর আগের বছর তুরস্কের যাদের কাছ থেকে পেঁয়াজ কেনা হয়েছে, তাদের সঙ্গে যেন এবারও আলোচনা করা হয়।

গত মঙ্গলবার পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহিরয়ার আলমও দুই দেশের অলিখিত সমঝোতার কথা উল্লেখ করে সাংবাদিকদের বলেছিলেন, ‘ভারতকে রপ্তানি নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়েছে বাংলাদেশ।’

ঢাকায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে ভারতীয় হাইকমিশনে এবং নয়াদিল্লিতে বাংলাদেশ হাইকমিশনের মাধ্যমে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করেও ওই নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের অনুরোধ করা হয়েছে।

মন্তব্য