kalerkantho

রবিবার  । ১৫ চৈত্র ১৪২৬। ২৯ মার্চ ২০২০। ৩ শাবান ১৪৪১

শ্রম আইন সংশোধনের দাবিতে আশুলিয়ায় মানববন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদক, সাভার (ঢাকা)   

৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পোশাক শ্রমিক ধর্ষণের বিচার, সব কারখানায় যৌন নিপীড়নবিরোধী অভিযোগ সেল গঠন এবং শ্রম আইন ও বিধিমালা সংশোধনের দাবিতে মানববন্ধন করেছে বাংলাদেশ গার্মেন্ট শ্রমিক সংহতি আশুলিয়া শাখা। গতকাল শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৩টায় আশুলিয়া প্রেস ক্লাবের সামনে এ কর্মসূচি পালন করা হয়।

সংগঠনটির আশুলিয়া থানা শাখার সভাপ্রধান বাবুল হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ মানববন্ধনে বক্তব্য দেন সংগঠনের সভাপ্রধান তাসলিমা আখতার, সাধারণ সম্পাদক জুলহাসনাইন বাবু, সাংগঠনিক সম্পাদক আমিনুল ইসলাম শামা, কেন্দ্রীয় সদস্য এফ এম নূরুল ইসলাম, থানা শাখার সহসভাপ্রধান মাসুদ রানা বাবলু, সাধারণ সম্পাদক জিয়াদুল ইসলাম, আরিফা আক্তার, রূপালী আক্তার প্রমুখ।

মানববন্ধনে তাসলিমা আখতার দুই নারী পোশাক শ্রমিকের ধর্ষণের ঘটনার বিচার দাবি করে বলেন, ‘হাইকোর্টের সুস্পষ্ট নির্দেশনা থাকা সত্ত্বেও বেশির ভাগ কারখানাতে যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে নির্ভয়ে অভিযোগ করার মতো কোনো অভিযোগ সেল গঠন করা হয়নি।’ অবিলম্বে সব কারখানায় যৌন নিপীড়নবিরোধী নীতিমালা ও অভিযোগ সেল গঠন এবং এলাকায় এলাকায় শ্রমিকদের নিরাপত্তা জোরদারের দাবি জানান তিনি।

মানববন্ধনে অন্য বক্তারা বলেন, বাণিজ্যমন্ত্রী পোশাক খাতের মালিকের মন্ত্রী হয়ে আছেন, শ্রমিকের মন্ত্রী হতে পারেননি। কেননা তিনি শ্রমিকের পক্ষে কোনো আশ্বাস দিতে পারেননি। বক্তারা আরো বলেন, শ্রম আইন উপেক্ষা করে বিশেষ সার্কুলার জারি করে শ্রমিকদের চার ঘণ্টা পর্যন্ত ওভারটাইম করতে বাধ্য করা হচ্ছে। শ্রম মন্ত্রণালয়ের এ সার্কুলার অবিলম্বে বাতিল করতে হবে এবং কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির জন্য প্রয়োজনে ওভারটাইমের সুযোগ কমিয়ে দিয়ে দুই শিফটে বেশিসংখ্যক শ্রমিকের কাজের সুযোগ করে দিতে হবে।

বক্তারা বলেন, বর্তমানে যে শ্রম আইন ও বিধিমালা আছে সেখানকার ফাঁকফোকর কাজে লাগিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে শ্রমিকদের। ৪০ বছরের শিল্পে আজ পর্যন্ত অবাধ ট্রেড ইউনিয়নের অধিকার প্রতিষ্ঠিত হয়নি। অবিলম্বে শ্রম আইন ও বিধিমালা সংশোধন করে এ শিল্পে গণতান্ত্রিক পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা