kalerkantho

বুধবার । ২৩ অক্টোবর ২০১৯। ৭ কাতির্ক ১৪২৬। ২৩ সফর ১৪৪১                 

ত্রিশালে শিশু ধর্ষণ মামলা

সাত মাসেও আসামি অধরা বাদীপক্ষকে হুমকি

ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি   

২৪ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ময়মনসিংহের ত্রিশালের সাখুয়া ইউনিয়নে শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি ঘটনার সাত মাস পরও গ্রেপ্তার হননি। শিশুটির পরিবার ও এলাকাবাসীর অভিযোগ, আসামিকে গ্রেপ্তারে তৎপর নয় পুলিশ। আসামিপক্ষ মামলাটি তুলে নিতে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে বলে পরিবারটির অভিযোগ।

মামলার আসামি সুরুজ আলী মণ্ডল (৫০) সাখুয়ার বাবুপুর গ্রামের বাসিন্দা।

অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ২০১৮ সালের ২২ ডিসেম্বর সকালে ১০ বছরের শিশুটি বাড়ির কাছে মায়ের পাঠানো টাকা দিয়ে দোকান থেকে জিরা-দারুচিনি আনতে যায়। পথে সুরুজ আলী মণ্ডল শিশুটিকে ডেকে নিয়ে ১০ টাকার চকোলেট কিনে দেওয়ার কথা বলেন। শিশুটি না যেতে চাইলে সুরুজ নানা প্রলোভন দেখিয়ে দোকানের কাছে মৌলভি ফজলুল হকের বসতবাড়ির পরিত্যক্ত রান্নাঘরে নিয়ে তাকে ধর্ষণ করেন। বাড়িতে কিছু বললে বিপদ হবে বলে শিশুটিকে ভয়ও দেখান। তবে অসুস্থ শিশুটি বাড়ি এসে পরিবারকে ঘটনা জানায়। তারা তাকে হাসপাতালে চিকিৎসা করায়। এ ঘটনায় তার ভাই ২৫ ডিসেম্বর ত্রিশাল থানায় ধর্ষণ মামলা করেন। মামলার তদন্তভার দেওয়া হয় এসআই পলাশ ব্যানার্জিকে।

মামলার বাদী বলেন, ‘এখনো পুলিশ আসামিকে গ্রেপ্তার করল না, এটা কষ্টদায়ক। আসামিপক্ষের লোকজন মামলা তুলে নিতে আমার পরিবারকে বিভিন্নভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে, চাপ দিচ্ছে; এলাকা ছাড়া করার হুমকি দিচ্ছে। কিন্তু পুলিশ কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছে না।’

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই পলাশ ব্যানার্জি বলেন, ‘প্রাথমিক তদন্তে ধর্ষণচেষ্টার আলামত মিলেছে।’

 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা