kalerkantho

মঙ্গলবার । ১২ নভেম্বর ২০১৯। ২৭ কার্তিক ১৪২৬। ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

আশুলিয়ায় গুলিবিদ্ধ পোশাক শ্রমিকসহ দুই লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক, সাভার (ঢাকা)   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঢাকার অদূরে সাভারের আশুলিয়ায় গুলিবিদ্ধ অবস্থায় এক পোশাক শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। গত শুক্রবার গভীর রাতে তাঁকে মৃত অবস্থায় সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আনা হয়েছিল। গতকাল শনিবার সকালে ওই এলাকার একটি বাঁশঝাড় থেকে এক নারীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় একজনকে আটক করা হয়েছে।

গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া পোশাক শ্রমিকের নাম রাসেল খান (২৭)। তিনি আশুলিয়ার জামগড়া এলাকার মান্তা অ্যাপারেলস লিমিটেডের শ্রমিক ছিলেন। তিনি মাদারীপুরের ফজলু খানের ছেলে।

অন্যদিকে বাঁশঝাড় থেকে যাঁর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে তিনি হলেন রাজিয়া খাতুন (২২)। তিনি আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকায় থাকতেন। তাঁর বাড়ি বগুড়ার ধুনট এলাকায়।

সাভার এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. অশোক কুমার সাংবাদিকদের জানান, গভীর রাতে ৮-১০ জন লোক রাসেল নামের এক ব্যক্তিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে আসে। মৃত অবস্থায় পাওয়া ওই ব্যক্তির শরীরে চারটি গুলি ছিল।

রাসেলের বাবা ফজলু খান জানান, রাত ১টার দিকে অচেনা কয়েক ব্যক্তি তাঁর মোবাইল ফোনে ফোন করে ছেলেকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানায়। এরপর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাঁর ছেলের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করে।

এ ব্যাপারে আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জাবেদ মাসুদ জানান, দুই দিন আগে নিহত রাসেলের এক বন্ধুর মোবাইল ফোনসেট ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। রাসেল সেই ফোনসেট উদ্ধারের জন্য শুক্রবার গভীর রাতে তাঁর পাঁচ বন্ধুকে নিয়ে শিমুলতলার জমিদার বাড়িসংলগ্ন সড়কে ছিনতাইকারীদের ধরতে ওত পাতেন। পরে ছিনতাইকারীদের ধাওয়া দিলে তারা গুলি চালায়। রাসেলের শরীরে গুলি লাগে। তাঁর বন্ধুরা পালিয়ে যান। পরে স্থানীয় লোকজন রাসেলকে এনাম হাসপাতালে নিয়ে আসে।

রাসেলের পাঁচ বন্ধুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে বলে জানান পুলিশ কর্মকর্তা।

পুলিশ পরিদর্শক মাসদু আরো জানান, আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকা থেকে রাজিয়া খাতুন নামের এক নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ওই নারীকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে। এ ঘটনায় নিহতের ভাগ্নে পরিচয়দানকারী এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।

এ দুটি ঘটনায় আশুলিয়া থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন ওসি রিজাউল হক।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা