kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

গাইবান্ধা মাতালেন চার ‘ভ্রমণকন্যা’

গাইবান্ধা প্রতিনিধি   

২১ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গাইবান্ধা ঘুরছেন  চার ‘ভ্রমণকন্যা। স্কুটিতে চেপে গাইবান্ধা শহরে তাঁদের সপ্রতিভ ঘোরাঘুরি কিংবা স্কুলছাত্রীদের মুক্তিযুদ্ধের গল্প শোনানো; স্বাস্থ্য, শিক্ষা ও আত্মরক্ষার কৌশল শেখানো—সবই মুগ্ধ করেছে স্থানীয়দের। তীব্র শীত উপেক্ষা করে উত্তরের কয়েকটি জেলা ঘুরে গত শনিবার রাতে গাইবান্ধায় যান চার ভ্রমণকন্যা। গতকাল রবিবার দিনভর তাঁদের নানা কর্মসূচি ছিল স্কুলছাত্রীদের সঙ্গে।

চার ‘ভ্রমণকন্যা’ হলেন—ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের ডা. সাকিয়া হক, ডা. মানসী সাহা এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী নাজমুন নাহার মুক্তা ও সিলভি রহমান। গতকাল গাইবান্ধার আব্দুল হাই আকবর আলী খান উচ্চ বিদ্যালয়ে তাঁরা পার করেন কর্মব্যস্ত এক দিন। সেখানে বঙ্গবন্ধু থেকে শুরু করে মুক্তিযুদ্ধের ৯ মাসের ইতিহাস তুলে ধরেন তাঁরা।

চার ভ্রমণকন্যার কর্মসূচি শুরু হয় জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে। এরপর শুরু হয় কিশোরীদের বয়ঃসন্ধিসহ শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যবিষয়ক প্রশ্নোত্তর। সেখানে ছাত্রীরা খোলাখুলি তাদের সমস্যা তুলে ধরে এবং প্রতিকার জানতে চায়।

সিলভি রহমান জানান, ২০১৬ সালে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের দুই সাহসী শিক্ষার্থী সাকিয়া হক ও মানসী সাহার প্রচেষ্টায় গড়ে ওঠে বাংলাদেশের একমাত্র নারী ট্রাভেলিং গ্রুপ। নাম ‘ট্রাভেলেটস অব বাংলাদেশ’। এখন বিভিন্ন বয়সী নারীদের অংশগ্রহণে এটি ১৫ হাজার সদস্যের এক বিশাল দল। নিজেদের বাইকে চেপে ট্রাভেলেটরা ছোটে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে।

আব্দুল হাই আকবর আলী খান উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আবদুর রব বলেন, ‘শিক্ষিত তারুণ্যদ্বীপ্ত এই চার কন্যার কাছ থেকে আমাদের ছাত্রীরা অনেক কিছু শিখেছে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা