kalerkantho

শুক্রবার । ৭ কার্তিক ১৪২৭। ২৩ অক্টোবর ২০২০। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

প্রাণের মেলা

পছন্দের শীর্ষে উপন্যাস

আজিজুল পারভেজ   

১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



পছন্দের শীর্ষে উপন্যাস

সংখ্যার বিচারে বেশি প্রকাশিত হয় কবিতার বই; কিন্তু বিক্রি বেশি উপন্যাসেরই। এ কারণেই কি না খ্যাত-অখ্যাত, নবীন কিংবা প্রবীণ সব লেখকের উপন্যাস প্রকাশিত হয় অমর একুশে গ্রন্থমেলায়। প্রায় সব প্রকাশনা সংস্থাই নতুন উপন্যাস প্রকাশের চেষ্টা করে। অনেক প্রতিষ্ঠান আবার নতুন বইয়ের পাশাপাশি জনপ্রিয় লেখকদের প্রকাশিত উপন্যাসকে নানা অভিধায় সংকলন আকারে প্রকাশ করে থাকে।

এবারের অমর একুশে গ্রন্থমেলায় গতকাল রবিবার পর্যন্ত এসেছে দুই হাজার ৩৪০টি নতুন বই। এর মধ্যে উপন্যাস এসেছে ৩৮২টি। গত বছর চার হাজার ৬৮৫টি নতুন বইয়ের মধ্যে উপন্যাস ছিল ৬৮২টি। এর আগের বছর চার হাজার ৫৯১টি নতুন বইয়ের মধ্যে উপন্যাস ছিল ৬৪৩টি।

অনিন্দ্য প্রকাশের আফজাল হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘উপন্যাস কিংবা গল্পের বই হলে প্রকাশের ব্যাপারে আমরা দ্বিধা করি না। মেলা ছাড়াও সারা বছরই কমবেশি চলে। উপন্যাসের পাঠক আছে।’

গতকাল সন্ধ্যায় অন্য প্রকাশের স্টলে এবার কী কী উপন্যাস এসেছে—খোঁজ নিচ্ছিলেন সরকারি চাকরিজীবী অনিন্দিতা আফজাল। তাঁর সঙ্গে কথা হয়। তিনি জানান, হুমায়ূন আহমেদের বই পড়ে তাঁর পড়ার অভ্যাস গড়ে উঠেছে। এখন তো আর হুমায়ূন আহমদের নতুন বই পাওয়ার সুযোগ নেই। তবু অভ্যাসবশত মেলায় আসেন এবং মূলত উপন্যাসই কিনে থাকেন তিনি।

খোঁজ নিয়ে জানা গেল, এবারের মেলায় নতুন বইয়ের মধ্যে কথা প্রকাশ এনেছে হরিশংকর জলদাসের উপন্যাস ‘মৎস্যগন্ধা’ ও রেজানুর রহমানের ‘আবাসভূমি’। ইত্যাদি গ্রন্থ প্রকাশ এনেছে রিজিয়া রহমানের ‘রাজনৈতিক ও সামাজিক উপন্যাস’, চন্দন আনোয়ারের ‘অর্পিত জীবন’, জহির খানের ‘মেঘের আড়ালে মেঘ’। অনন্যা এবার অনেক নতুন উপন্যাস প্রকাশ করেছে। এর মধ্যে জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক ইমদাদুল হক মিলনের ‘টোপ’ ও ‘কয়েকজন মেয়ে’, সালমা বাণীর ‘ইমিগ্রেশন’, সিরাজুল ইসলাম মুনিরের ‘একদিন চিরদিন’ উল্লেখযোগ্য।

পার্ল পাবলিকেশন্স এনেছে জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক মোস্তফা কামালের ‘মানবজীবন’, দীপু মাহমুদের ‘আধিয়ার’সহ কয়েকটি বই। এ ছাড়া প্রকাশ করেছে আনিসুল হকের ‘হাসিসমগ্র’।

প্রথমা এনেছে আনিসুল হকের ‘এখানে থেমো না’, আসিফ নজরুলের ‘ঘোর’, বিশ্বজিৎ চৌধুরীর ‘কবি ও রহস্যময়ী’, মাসরুর আরেফিনের ‘আলথুসার’। প্রকাশের অপেক্ষায় আছে হাসনাত আবদুল হাইয়ের ‘হেমিংওয়ের সঙ্গে’। বিদ্যা প্রকাশ এনেছে মোহিত কামালের ‘হ্যাঁ’ ও ধ্রুব এষের ‘সরোজিনীর ডায়রি’।

সময় প্রকাশন মেলায় এনেছে ধ্রুব এষের ‘পরামানবী’, সাইদ হাসান দারার ‘নৈঃসঙ্গের গোলকধাঁধা’, দীপু মাহমুদের ‘দেশের লাগি’, আনিসুল হকের সংকলন ‘চার রকম মন’ প্রভৃতি। অন্যপ্রকাশ থেকে প্রকাশিত হয়েছে সুমন্ত আসলামের ‘যদি কখনো’ ও সাদাত হোসাইনের ‘মেঘেদের দিন’ ও ‘মরণোত্তম’।

পাঞ্জেরী এনেছে আনোয়ারা সৈয়দ হকের ‘কঙ্কালের মুখ’, ধ্রুব এষের ‘পরেশের বউ’, সিদ্ধার্থ হকের ‘চিরকাল’, স্বকৃত নোমানের ‘শেষ জাহাজের আদমেরা’ ও মারুফ রসূলের ‘কাঙ্ক্ষিত মৃত্যুর খসড়া’। এ ছাড়া প্রকাশনা সংস্থাটি সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম ও মঈনুল আহসান সাবেরের ‘উপন্যাস ত্রয়ী’ এবং আনিসুল হকের সংকলন ‘তিন অপরূপা’ প্রকাশ করেছে মেলা উপলক্ষে।

নাগরী এনেছে ইমতিয়ার শামীমের উপন্যাস ‘যারা স্বপ্ন দেখেছিল’, প্রশান্ত মৃধার উপন্যাস ‘গোলকধাঁধায় ঘোরাফেরা’ ও জফির সেতুর উপন্যাস ‘একটা জাদুর হাড়’।

অ্যাডর্ন পাবলিকেশন্স প্রকাশ করেছে আতা সরকারের ‘তিতুর লেঠেল’ ও ‘আপন লড়াই’ এবং ওমর ফারুকের ‘শায়লার জবানবন্দি’।

অনিন্দ্য প্রকাশ মেলায় এনেছে অনেকগুলো উপন্যাস। এর মধ্যে রয়েছে মোশতাক আহমেদের ‘বসন্ত বর্ষার দিগন্ত’, ইশতিয়াক আহমেদের ‘গতকাল’ ও ‘আপেলশাস্ত্র’, জামশেদ নাজিমের ‘আবেগের জলডুবি’, এম মামুন হোসেনের ‘তুপা’ প্রভৃতি।

শোভা প্রকাশ এনেছে সুব্রত পালের ‘রঙ বদল’, মহিবুল আলমের ‘মরদ’ ও ‘জোড়া সিঁথি নদীর তীরে’। মানিক মানবিকের ‘জীবন যৌবন এবং জলাঞ্জলি’ প্রকাশ করেছে প্ল্যাটফর্ম।

মেলায় আসা উপন্যাসের মধ্য থেকে চারটির তথ্য তুলে ধরা হলো।

‘কঙ্কালের মুখ’ : মনোচিকিৎসক ও কথাশিল্পী আনোয়ারা সৈয়দ হকের গা ছমছম করা এক রহস্য উপন্যাস। শত বছরের পুরনো মানসিক হাসপাতাল মেরিটাইম—লন্ডন শহর থেকে ২০ মাইল দূরের এই হাসপাতালটি দাঁড়িয়ে আছে গাছগাছালি আর রহস্যে ঘেরা এক পরিবেশে। এক ছায়ামূর্তিকে কেন্দ্র করে একের পর এক রহস্য, টানটান উত্তেজনা আর নানা ঘটনার মধ্য দিয়ে এগিয়ে গেছে এর গল্প। উপন্যাসটি প্রকাশ করেছে পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স। মূল্য ১৬৫ টাকা।

‘কয়েকজন মেয়ে’ : সমাজের বিভিন্ন স্তরের ১০ জন মেয়ের গল্প ‘কয়েকজন মেয়ে’। ইমদাদুল হক মিলনের লেখা আবেগ ও হৃদয় তোলপাড় করা ভালোবাসায় পূর্ণ এ গ্রন্থ যেকোনো পাঠকের চোখে পানি আনবে। বইটি প্রকাশ করেছে অনন্যা। বইটির মূল্য ৬০০ টাকা।

‘আবাসভূমি’ : লাশের স্তূপ নিয়ে খোলা ট্রাকটি ছুটছে। কাবুল হোসেন দলা পাকানো অসংখ্য লাশের মাঝে নিঃশ্বাস বন্ধ করে পড়ে আছে। প্রস্রাব-পায়খানার দুর্গন্ধে বমি আসছে তার। কিন্তু বমি করা যাবে না। বমি করলেই শব্দ হবে, তাতে যদি ধরা পড়ে যায়? মুক্তিযুদ্ধের পটভূমিতে লেখা রেজানুর রহমানের উপন্যাস। বইটি প্রকাশ করেছে কথা প্রকাশ। মূল্য ২৫০ টাকা।

ক্রান্তিকাল’ : জসীমুদ্দিন মাসুমের উপন্যাস। এক নারীর জীবনযুদ্ধ চমৎকারভাবে চিত্রায়িত হয়েছে বইটিতে। অন্বেষা প্রকাশন থেকে বেরিয়েছে বইটি। মূল্য ৪০০ টাকা।

গতকালের মেলা : অমর একুশে গ্রন্থমেলার ১৫তম দিনে গতকাল নতুন বই এসেছে ১৪৬টি। এর মধ্যে উপন্যাস ১৫টি।

বিকেলে গ্রন্থমেলার মূল মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় পিয়াস মজিদ রচিত ‘মুক্তিযুদ্ধ বঙ্গবন্ধু ও বাংলা একাডেমি’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন গবেষক শাহিদা খাতুন। আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন কবি শিহাব সরকার এবং গবেষক ড. ইসরাইল খান। লেখকের বক্তব্য দেন পিয়াস মজিদ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিশিষ্ট কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন।

‘লেখক বলছি’ অনুষ্ঠানে নিজেদের নতুন বই নিয়ে আলোচনা করেন মাসরুর আরেফিন, সোহেল হাসান গালিব, সৈয়দ জাহিদ হাসান এবং আলতাফ শাহনেওয়াজ।

কবিকণ্ঠে কবিতা পাঠ করেন কবি মাসুদুজ্জামান, মাহবুব আজীজ, জাহানারা পারভীন ও আশরাফ জুয়েল। আবৃত্তি পরিবেশন করেন আবৃত্তিশিল্পী শিরিন ইসলাম, আজিজুল বাসার ও মনিরুল ইসলাম। ছিল আবুল ফারাহ্ মো. তোয়াহার পরিচালনায় সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘বিশ্বভুবন’, জিনিয়া জ্যোত্স্নার পরিচালনায় নৃত্য সংগঠন ‘জিনিয়া নৃত্যকলা একাডেমি’ এবং সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘ক্রান্তি শিল্পীগোষ্ঠী’র পরিবেশনা।

আজ বিকেল ৪টায় গ্রন্থমেলার মূলমঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে অধ্যাপক হারুন-অর-রশিদ রচিত ‘৭ই মার্চের ভাষণ কেন বিশ্ব-ঐতিহ্য সম্পদ : বঙ্গবন্ধু মুক্তিযুদ্ধ বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা