kalerkantho

মঙ্গলবার । ৫ জুলাই ২০২২ । ২১ আষাঢ় ১৪২৯ । ৫ জিলহজ ১৪৪৩

আফগানিস্তানে ভূমিকম্পে মৃত্যু হাজার ছাড়িয়েছে

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৩ জুন, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আফগানিস্তানে ভূমিকম্পে মৃত্যু হাজার ছাড়িয়েছে

দুই দশকের মধ্যে সবচেয়ে প্রাণঘাতী ভূমিকম্পে আফগানিস্তানে প্রাণ হারাল অন্তত এক হাজার মানুষ। মঙ্গলবার গভীর রাতে দুর্গম সীমান্ত অঞ্চলে আঘাত হানা এ ভূমিকম্প ছিল বেশ শক্তিশালী। ভূমিকম্পে আহত হয়েছে বেশ কয়েক শ।

হতাহতের সংখ্যা আরো বৃদ্ধি পাবে বলে আশঙ্কা করছিলেন আফগান কর্মকর্তারা।

বিজ্ঞাপন

উদ্ধারকারীরা ধসে পড়া বহু স্থাপনার নিচ থেকে হতাহতদের বের করে আনতে উদ্ধারকাজ চালাচ্ছিলেন। মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থার (ইউএসজিসি) দেওয়া তথ্যানুসারে, ২০০২ সালের পর এবারই এই

মারাত্মক ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে আফগানিস্তানে। খোস্ত শহর থেকে ৪৪ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে পাকিস্তানের সীমান্তের কাছে আঘাত হানে ভূমিকম্পটি।

ইউরোপীয়-ভূমধ্যসাগরীয় ভূমিকম্প কেন্দ্র (ইএমএসসি) বলছে, ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল রিখটার স্কেলে ৬.১।  

তবে ইউএসজিসির তথ্যানুসারে এটি ছিল ৫.৯ মাত্রার।

এক টুইট বার্তায় ইএমএসসি বলেছে, ভূমিকম্পের কম্পন পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও ভারতের ১১ কোটি ৯০ লাখ মানুষ অনুভব করেছে। সংস্থাটির ওয়েবসাইটের তথ্য বলছে, ভূমিকম্পের কেন্দ্র থেকে ৪৮০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত পাকিস্তানের লাহোরেও কম্পন অনুভূত হয়েছে। তবে পাকিস্তান থেকে কোনো হতাহতের খবর আসেনি।

পরিস্থিতি প্রসঙ্গে ক্ষতিগ্রস্ত পাকতিকা প্রদেশের তথ্য ও সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের প্রধান মোহাম্মদ আমিন হুজাইফা বলেন, ‘মানুষ কবরের পর কবর খুঁড়ে যাচ্ছে। ... বৃষ্টি হচ্ছে, সব বাড়িঘর ধ্বংস হয়ে গেছে। অনেক লোক এখনো ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকা পড়ে আছে। ’

স্থানীয় সময় রাত দেড়টার দিকে ভূমিকম্প হওয়ায় হতাহতের সংখ্যা এত বেশি হয়েছে।

আফগান তালেবান সরকারের সর্বোচ্চ নেতা হিবাতুল্লাহ আখুন্দজাদা ভূমিকম্পের পর পরই হতাহতের সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে বলে সতর্ক করেন।

পাকতিকার এক উপজাতীয় নেতা জানান, বেঁচে যাওয়া লোকজন এবং উদ্ধারকর্মীরা একত্রে ক্ষতিগ্রস্তদের উদ্ধারে কাজ করছে। ইয়াকুব মানজুর নামের ওই ব্যক্তি বলেন, ‘স্থানীয় বাজার বন্ধ রয়েছে এবং সব মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় গেছে। ’ অনলাইন সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার হওয়া ছবি ও ভিডিওতে দেখা গেছে, স্থানীয় বাসিন্দারা সামরিক হেলিকপ্টারে আহতদের তুলে দিচ্ছে।

 সূত্র: এএফপি, রয়টার্স



সাতদিনের সেরা