kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ আশ্বিন ১৪২৮। ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১৫ সফর ১৪৪৩

এক দিনে ২৬৪ মৃত্যুর রেকর্ড

ঢাকায়ই মৃত্যুর ঊর্ধ্বগতি, অন্য বিভাগে কিছুটা কমছে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৬ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে




এক দিনে ২৬৪ মৃত্যুর রেকর্ড

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে এক দিনে মৃত্যুর নতুন রেকর্ড হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছে ২৬৪ জন। সরকারি হিসাবে দেশে এক দিনে মৃত্যুর এটাই সর্বোচ্চ সংখ্যা। এর আগে ২৫৮ জনের মৃত্যুর তথ্য জানানো হয় গত ২৭ জুলাই।

সব মিলিয়ে এ পর্যন্ত দেশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সরকারি হিসাবে মোট মারা গেছে ২১ হাজার ৯০২ জন। মোট মৃত্যুর হার ১.৬৬ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুর হার ২.১ শতাংশ।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্যে এমন চিত্র পাওয়া গেছে।

বিশেষজ্ঞরা পরিস্থিতি বিশ্লেষণ করে পূর্বাভাস দিয়েছিলেন দু-তিন সপ্তাহ আগে যে হারে করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছিল, সেই আনুপাতিক হারে মৃত্যু বাড়বে।

এদিকে আগের চেয়ে নারীদের মৃত্যু বাড়ায় উদ্বেগ বাড়ছে। আগে যেখানে বেশির ভাগ দিনই পুরুষের তুলনায় নারীদের মৃত্যু ছিল অর্ধেকের কাছাকাছি, সেখানে কিছুদিন ধরেই নারীর মৃত্যুসংখ্যা পুরুষের কাছাকাছি চলে এসেছে।

জানতে চাইলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের উপদেষ্টা ড. মুশতাক হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, যখন যে হারে শনাক্ত থাকবে তার দু-তিন সপ্তাহ পর মৃত্যু ওই হারেই বাড়বে। ফলে এখন যে পরিমাণ রোগী শনাক্ত হচ্ছে স্বাভাবিকভাবে আগামী দিনে মৃত্যু আরো বাড়ার আশঙ্কা রয়েছে। যদিও চলতি মাসের শেষ সপ্তাহ নাগাদ আবার কিছুটা কমতে পারে। তিনি বলেন, আগের তুলনায় নারীদের মৃত্যু বাড়ার কারণ হলো নারীরা ঘরে বসেই আক্রান্ত হচ্ছে পরিবারের অসতর্ক পুরুষ সদস্যদের মাধ্যমে। এ ছাড়া বয়স্করাও একইভাবে আক্রান্ত হয়ে মারা যাচ্ছেন।

গতকাল স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পাঠানো তথ্য অনুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ২৬৪ জনের মধ্যে ১৪০ জন পুরুষ ও ১২৪ জন নারী। ঢাকা বিভাগেই বেশি মৃত্যু হচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ৮৭ জনের মৃত্যু হয়েছে এ বিভাগে। এর পরই ৫৬ জন চট্টগ্রামে, ৩৫ জন খুলনায়, ২৩ জন সিলেটে, ১৮ জন রংপুরে, ১৬ জন বরিশালে, ১৯ জন রাজশাহীতে এবং ১০ জন মারা গেছে ময়মনসিংহে। তাদের মধ্যে ১৯০ জন মারা গেছে সরকারি হাসপাতালে, ৫৫ জন বেসরকারি হাসপাতালে এবং ১৯ জন বাড়িতে।

গত ২৪ ঘণ্টায় যারা মারা গেছে তাদের মধ্যে সব বয়সী মানুষই আছে। ১০ বছরের নিচের এক শিশু, ১১ থেকে ২০ বছরের একজন, ২১ থেকে ৩০ বছরের পাঁচজন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ২৫ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের ৩১ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের ৫৯ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের সর্বোচ্চ ৭৪ জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের ৫০ জন, ৮১ থেকে ৯০ বছরের ১৫ জন এবং ৯১ থেকে ১০০ বছরের তিনজন।

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন রোগী শনাক্ত কিছুটা কমে ১২ হাজার ৭৪৪ জনে নেমে এসেছে। আগের দিন বুধবার ১৩ হাজার ৮১৭ জন নতুন রোগী শনাক্তের তথ্য জানানো হয়। কমেছে দৈনিক শনাক্তের হারও। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ছিল ২৭.১২ শতাংশ। আগের দিন ছিল ২৭.৯১ শতাংশ। অন্যদিকে ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছে ১৫ হাজার ৭৮৬ জন। সব মিলিয়ে এ পর্যন্ত দেশে মোট শনাক্ত ১৩ লাখ ২২ হাজার ৬৫৪ জন। এর মধ্যে মারা গেছে ২১ হাজার ৯০২ জন এবং সুস্থ হয়েছে ১১ লাখ ৫৬ হাজার ৯৪৩ জন।



সাতদিনের সেরা