kalerkantho

রবিবার । ২৮ আষাঢ় ১৪২৭। ১২ জুলাই ২০২০। ২০ জিলকদ ১৪৪১

বাস চলাচল শুরু

প্রথম দিনে সব জেলায় মানা হয়নি স্বাস্থ্যবিধি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২ জুন, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



প্রথম দিনে সব জেলায় মানা হয়নি স্বাস্থ্যবিধি

গণপরিবহন চালু হয়েছে গতকাল। কোনো কোনো বাসে স্বাস্থ্যবিধি মানার চেষ্টা চোখে পড়লেও অনেক বাসেই মানার বালাই ছিল না। যাত্রীদেরও শৃঙ্খলা মানার ব্যাপারে ছিল অনীহা। গতকাল দুপুরে ফার্মগেট এলাকা থেকে তোলা। ছবি : শেখ হাসান

করোনা সংক্রমণ রোধে সরকারি নির্দেশনায় দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর গতকাল সোমবার থেকে সারা দেশে পুনরায় যাত্রীবাহী বাস চলাচল শুরু হয়েছে। তবে বাস চালানোর ক্ষেত্রে সরকারের দেওয়া স্বাস্থ্য সুরক্ষা নির্দেশনা মানা হয়নি অনেক জেলায়ই। স্বাস্থ্যবিধি পরিপালনের নির্দেশনা বাস্তবায়নে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ছিল তৎপরতা। বিভিন্ন স্থানে সড়কে নামা বাসগুলো থেকে অনিয়মের দায়ে জরিমানা আদায় করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

সরেজমিনে গতকাল রাজধানীর গাবতলী বাস টার্মিনাল ও আবদুল্লাহপুরে দেখা গেছে, আন্ত জেলা ও দূরপাল্লার রুটে চলাচল করা বাসগুলোতে স্বাস্থ্যবিধি মেনেই যাত্রী বহন করা হচ্ছে। দুজনের আসনে একজন করে যাত্রী নেওয়া হচ্ছে। ফাঁকা রাখা হচ্ছে পাশের আসন। ঢাকা-ফরিদপুর রুটে চলাচলকারী গোল্ডেন লাইন পরিবহনের কাউন্টার ম্যানেজার তরুণ কুমার বলেন, ‘আমরা ঢাকা থেকে ফরিদপুর পর্যন্ত বর্তমানে ৫০০ টাকা করে ভাড়া নিচ্ছি। দুজনের আসনে যাত্রী নেওয়া হচ্ছে একজন করে। এ ছাড়া বাসে ওঠার আগে প্রত্যেক যাত্রীর গায়ে জীবাণুনাশক ছিটানো হচ্ছে।

শেরপুর প্রতিনিধি জানান, স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব না মেনে পাশাপাশি আসনে দুজন করে যাত্রী বহন করায় শেরপুর থেকে ঢাকার সাভারগামী একটি যাত্রীবাহী বাসকে জামালপুর এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালত ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন।

গতকাল দুপুরে শহরের নতুন বাস টার্মিনালে টিকিটের জন্য অপেক্ষমাণ যাত্রীদের দীর্ঘ লাইন দেখা যায়। সেখানে রাখা হয়নি কোনো ধরনের হ্যান্ড স্যানিটাইজার কিংবা জীবাণুনাশক। পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম টার্মিনালে শেরপুর-ঢাকা সোনার বাংলা কাউন্টার পরিদর্শন করেন। হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা জীবাণুনাশকের ব্যবস্থা না থাকায় তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

যশোর অফিস জানায়, স্বাস্থ্যবিধি মেনেই যশোরের বাস টার্মিনাল থেকে গতকাল ১৮টি রুটে যাত্রীবাহী বাস ছেড়ে যায়। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শফিউল আরিফ বলেন, ‘গণপরিবহন চলাকালে স্বাস্থ্যবিধি ও ভাড়া নিয়ে কোনো অনিয়ম রোধে সকাল থেকেই জেলা প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে দুটি ভ্রাম্যমাণ আদালত কাজ করেছে।’

ঝালকাঠি প্রতিনিধি জানান, গতকাল সকাল থেকেই ঝালকাঠি-বরিশাল রুটে যাত্রীর উপচে পড়া ভিড় ছিল। স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব বজার রাখার নির্দেশ মানেননি অধিকাংশ যাত্রী। ঝালকাঠির পুলিশ সুপার ফাতিহা ইয়াসমিন বলেন, ‘গণপরিবহন চালু হয়েছে। এতে মানুষের যাতায়াতের প্রতি নজর রাখছে পুলিশ। সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করা হয়েছে। বাস মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দকে সরকারের নির্দেশনা জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। নির্দেশনা না মানলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি জানান, জেলা শহরের বাসস্ট্যান্ডসহ বিভিন্ন কাউন্টার থেকে ছেড়ে যায় দূরপাল্লার বাস। আর শতভাগ না হলেও অধিকাংশ বাসই স্বাস্থ্যবিধি মেনে যাত্রী বহন করেছে।

রংপুর অফিস জানায়, গণপরিবহন চলাচল শুরুর প্রথম দিনে গতকাল রংপুরের কামারপাড়াস্থ ঢাকা কোচস্ট্যান্ট, কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল ও মডার্ন মোড় থেকে বিভিন্ন গন্তব্যে ছেড়ে যায় বাস। সকাল ৭টায় ১৩ জন যাত্রী নিয়ে প্রথম একটি বাস ঢাকার উদ্দেশে রংপুর ত্যাগ করে। বাসচালক রুহুল আমিন জানান, স্বাস্থ্যবিধি মেনেই যাত্রী ওঠানো হচ্ছে। মহাসড়কে যাত্রী ওঠানো হবে না। বাস টার্মিনাল থেকে যে কজন যাত্রী পাওয়া যায় তা নিয়েই ঢাকার উদ্দেশে যাত্রা শুরু করছি।’

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা