kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৫ অক্টোবর ২০১৯। ৩০ আশ্বিন ১৪২৬। ১৫ সফর ১৪৪১       

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ

হাসপাতালেই এডিস মশার লার্ভা!

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

৮ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ভেতরে বিভিন্ন জায়গায় এডিস মশার লার্ভা পাওয়া গেছে। মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষের বাসভবনের সামনে, হাসপাতালের ভাঙা বেসিন ও ২২ নম্বর ওয়ার্ডের কয়েকটি স্থানে জমে থাকা পানির নমুনা পরীক্ষা করে লার্ভার উপস্থিতি নিশ্চিত হয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

এ ছাড়া নগরীর বিভিন্ন এলাকার বাসা-বাড়ির ফুলের টব ও পরিত্যক্ত পাত্রে জমে থাকা পানি পরীক্ষা করেও লার্ভার উপস্থিতি ধরা পড়েছে।

রাজশাহীর সিভিল সার্জন কার্যালয়ের কীটতত্ত্ববিদ তায়েজুল ইসলাম জানান, তাঁরা রামেকের ফাল্গুনী হোস্টেলের সামনে পড়ে থাকা আইসক্রিমের কৌটায় জমে

থাকা পানি, অধ্যক্ষের বাসভবনের সামনে নারিকেলের মালায় জমে থাকা বৃষ্টির পানি, হাসপাতালের ২২ নম্বর ওয়ার্ডের সামনে পড়ে থাকা ভাঙা বেসিন ও আরো বেশ কয়েকটি জায়গায় জমে থাকা পানি পরীক্ষা করে এডিস মশার লার্ভা পেয়েছেন।

জানা গেছে, রাজশাহীতে এডিস মশার লার্ভার উপস্থিতি নিশ্চিত হতে কীটতত্ত্ববিদদের নিয়ে তিন সদস্যের কমিটি গঠন করেন রাজশাহী বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. গোপেন্দ  নাথ আচার্য্য। কমিটির প্রধান ছিলেন তায়েজুল ইসলাম। এই কমিটি গত পাঁচ দিন নগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে নমুনা হিসেবে পরিত্যক্ত প্লাস্টিকের ড্রাম ও অন্যান্য পাত্রে জমে থাকা বৃষ্টির পানি, বাসা-বাড়ির ফুলের টব ও পরিত্যক্ত কর্কশিট থেকে নমুনা সংগ্রহ করে। নমুনা পরীক্ষায় লার্ভার ব্যাপক উপস্থিতির বিষয়ে নিশ্চিত হন তাঁরা।

অধ্যক্ষের বাসভবনের সামনে থেকে লার্ভা পাওয়ার ব্যাপারে কলেজের অধ্যক্ষ নওশাদ আলী বলেন, বাসভবনটি প্রায় ১০ বছর ধরে পরিত্যক্ত রয়েছে। তদারকি না থাকায় সেখানে লার্ভা পাওয়া গেছে।

হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস বলেন, ‘হাসপাতালে মশার লার্ভা পাওয়ার ব্যাপারে এখনো শুনিনি। পাওয়া গেলে হাসপাতালের পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমে আরো বেশি তৎপর হব।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা