kalerkantho

শনিবার । ২৫ বৈশাখ ১৪২৮। ৮ মে ২০২১। ২৫ রমজান ১৪৪২

ফোন বন্ধ করে পালাল ৩০০০ করোনা রোগী!

অনলাইন ডেস্ক   

৩০ এপ্রিল, ২০২১ ১৬:৩৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ফোন বন্ধ করে পালাল ৩০০০ করোনা রোগী!

ভারতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও মৃত্যু প্রতিনিয়ত বাড়ছে। কিছুদিন ধরে দেশটিতে প্রতিদিন তিন লাখের উপর সংক্রমণ হচ্ছে। দৈনিক মৃত্যুও ছাড়িয়ে গেছে তিন হাজারের গণ্ডি। এরই মধ্যেই ভারতের কর্ণাটক রাজ্যের রাজধানী বেঙ্গালুরু থেকে তিন হাজার করোনা রোগী নিখোঁজ হয়েছে।

জানা গেছে, যারা পালিয়েছে তাদের মোবাইল ফোনও বন্ধ। স্থানীয় পুলিশ এখন হন্যে হয়ে তাদের খোঁজ শুরু করেছে। গতকাল বৃস্পতিবার এমনই চাঞ্চল্যর খবর দিয়েছেন রাজ্যেটির মন্ত্রী আর অশোকা। শুধু বেঙ্গালুরু শহরেই আক্রান্ত হয়েছে ২২ হাজার ৫৯৬ জন। এমন এক পরিস্থিতিতে ওই ৩ হাজার করোনা রোগীর নিখোঁজ হয়ে যাওয়াতে ঘুম হারাম হয়ে গেছে পুলিশের। অশোকা সাধারণ মানুষের কাছে অনুরোধ জানিয়ে বলেন, ‘দয়া করে আপনারা মোবাইল ফোন বন্ধ করে রাখবেন না। তাহলে আমাদের করোনা রোগীদের খোঁজ পেতে অসুবিধা হবে। কাজ করতে সমস্যা তৈরি হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘বর্তমানে সারা রাজ্যজুড়ে প্রায় দুই থেকে তিন হাজার করোনা সংক্রমিত রোগী নিখোঁজ রয়েছেন। তাঁদের বাড়িতেও পাওয়া যাচ্ছে না। তাদের ফোনগুলিও সুইচ অফ বলছে।’

তিনি বলেন, করোনায় আক্রান্ত হলে দয়া করে ভয় পেয়ে আপনারা নিজেদের ফোন বন্ধ করে রাখবেন না। বাড়ি ছেড়ে অন্য কোথাও পালাবেন না। এতে সংক্রমণ আরও বেড়ে যাবে। নিখোঁজ করোনা আক্রান্ত রোগীদের খোঁজ পেতে তাঁদের মোবাইল নম্বর ট্রেস করে তল্লাশী শুরু করেছে পুলিশ প্রশাসন। আগামী ১০ দিনের মধ্যেই সবাইকে খুঁজে বের করা হবে বলেও জানান তিনি।

এদিকে রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কে সুধাকর জনিয়েছেন, করোনা রোগীর নিখোঁজ হওয়া নতুন কিছু নয়। গত বছরও এমন ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু এই রোগীরা তাদের মোবাইল ফোন বন্ধ করে রাখায় সমস্যা হচ্ছে। বিষয়টি বেশ উদ্বেগজনকও বলে জানান তিনি।

কর্ণাটকে করোনা সংক্রমণ রুখতে গত সপ্তাহে থেকে ১৪ দিনের লকডাউন চলছে। মানুষের চলাচল রুখতে নেওয়া হয়েছে কড়া ব্যবস্থা। তার মধ্যেই ঘটলো এমন ঘটনা।

সূত্র: কলকাতা ২৪।



সাতদিনের সেরা