kalerkantho


ফ্রান্সে বাংলাদেশিদের কঠিন চ্যালেঞ্জ

২২ নভেম্বর, ২০১৭ ০০:০০



ফ্রান্সের বিভিন্ন শহরে বৈধ-অবৈধ অনেক বাংলাদেশি হোটেল-রেস্টুরেন্টে কর্মরত রয়েছে। অনেকে রাস্তায় ও মেট্রোর যাত্রাপথে ফলমুল ও খেলনা বিক্রির মাধ্যমে জীবিকা নির্বাহ করে।

তবে এখনো অনেক বাংলাদেশি বেকার। বৈধদের জন্য ফ্রান্সে কাজ পাওয়া তেমন কঠিন নয়, তবে অবৈধদের জন্য এবং ভাষা না জানা বাংলাদেশিদের জন্য কাজ পাওয়া বড়ই কষ্টকর। ফ্রান্সে এখন রাজনৈতিক আশ্রয় পাওয়া দুষ্কর এবং সহজে বৈধ কাগজপত্র পাওয়া কষ্টকর।

বহু বাংলাদেশি তরুণ বৈধ কাগজপত্র পাওয়ার আশায় যুগ যুগ ধরে ফ্রান্সে অবস্থান করছে। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে কোনো সহযোগিতা না পাওয়ায় তাদের কঠিন চ্যালেঞ্জের মধ্যে জীবন যাপন করতে হয়। এ ছাড়া ফ্রান্সের সঙ্গে বাংলাদেশের কোনো ব্যাংকের যোগসূত্র না থাকার কারণে এখানকার বাংলাদেশিরা তাদের কষ্টের উপার্জিত অর্থ একমাত্র হুন্ডি ছাড়া দেশে বৈধভাবে পাঠাতে পারে না। প্রায়ই হুন্ডির মাধ্যমে তাদের টাকা খোয়া যায়।

অনেকে ওয়েস্টার্ন ইউনিয়নের মাধ্যমে টাকা পাঠালেও তা আবার মুসলিম নাম থাকার কারণে দিনের পর দিন আটক রাখার বিড়ম্বনায় পড়তে হয়। ফ্রান্সে এবং ইংল্যান্ডে বোমা হামলার কারণে এই পরিস্থিতি আরো খারাপ হয়েছে।

তাই এসব বিড়ম্বনা ও দুর্ভোগ দূর করতে অবিলম্বে প্যারিসে বাংলাদেশের একটি ব্যাংকের শাখা খোলা উচিত। এতে বৈধভাবে বহু রেমিট্যান্স দেশে পাঠানো সম্ভব হবে এবং দেশ এতে উপকৃত হবে।

মাহবুব উদ্দিন চৌধুরী

ইউনেসকো ক্লাব, ইউনেসকো সদর দপ্তর, প্যারিস।


মন্তব্য