kalerkantho


গার্লফ্রেন্ড যখন সন্তানসম্ভবা...

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২০:০৪



গার্লফ্রেন্ড যখন সন্তানসম্ভবা...

'ওহ মাদার' ওয়েব সিরিজের একটি দৃশ্য। ছবি : ইন্টারনেট

আমাদের সমাজে প্রেম যতটা গ্রহণযোগ্য, বিবাহবহির্ভূত শারিরীক সম্পর্ক ততটা গ্রহণযোগ্য নয়। কিন্তু আজকাল প্রেমের সম্পর্ক বিয়ের আগেই গড়ায় শারিরীক সম্পর্কে। এর ফলে গর্ভবতী হয়ে পড়ার ঘটনা হরহামেশাই ঘটে। প্রেমিকের মতলব ভালো না থাকলে মেয়েটিকে গর্ভের সন্তানসহ বিপদে পড়তে হয়। অনেকে আত্মহত্যাও করেন। গণমাধ্যমে এমন খবর প্রায়ই আসে। কিন্তু এক্ষেত্রে পরিবারের আচরণ ঠিক কেমন হওয়া উচিত; তার চিত্রই দেখা গেল ওয়েব সিরিজ 'ওহ মাদার' এ।

কলেজ শিক্ষার্থী ছেলের গার্লফ্রেন্ড প্রেগন্যান্ট। এই খবর জানতে পেরে একটুও বিরক্ত হননি ছেলের মা! রেগেও যাননি। বরং ছেলেকে বাড়ি থেকে বের করে দিয়ে ছেলের গার্লফ্রেন্ডকে পরম আদরে আশ্রয় দিয়েছেন বাড়িতে! এমন দারুণ এক গল্প নিয়েই নির্মিত হয়েছে শাকেত বন্দ্যোপাধ্যায় পরিচালিত 'ওহ মাদার'। গত ২৩ নভেম্বর থেকে 'আড্ডাটাইমস' এ দেখা যাচ্ছে ৬ পর্বের এই ধারাবাহিকটি।

চিত্রনাট্য অনুযায়ী সৌরভ-দিয়ার কলেজের প্রেম। সম্পর্কের ২ বছর পর দিয়া সন্তানসম্ভবা হয়ে পড়েন। কিন্তু পরিস্থিতি কীভাবে সামাল দেওয়া যাবে তা না বুঝতে পেরে সটান সৌরভের মা শিপ্রার কাছে গিয়ে গোটা ঘটনাটি খুলে বলে তারা। শিপ্রার মেয়ের শখ ছিল বহুদিনের। দিয়ার মধ্যে সেই মেয়েকেই খুঁজে পান তিনি। ফলে একটুও বিচলিত না হয়ে সামলে নেন শিপ্রাকে। অবস্থা এমন দাঁড়ায়, সৌরভকে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েও দিয়ার ভালো থাকা নিশ্চিত করতে চান তিনি।

ইতিমধ্যেই প্রচুর সাড়া পেয়েছে 'ওহ মাদার'। পরিচালক শাকেত বলেছেন, 'গল্পটি ইয়ং জেনারেশনের ভালো লাগছে। দুটি মেজর ক্যারেক্টার হিন্দিতে কথা বলছে। একটা ক্যারেক্টার বেশিরভাগ সময় ইংরেজিতে কথা বলে। ফলে বাংলা ওয়েব সিরিজ হলেও ভারতের বাইরে থেকেও বহু মানুষ দেখছেন।'



মন্তব্য