kalerkantho

শনিবার । ২৫ জানুয়ারি ২০২০। ১১ মাঘ ১৪২৬। ২৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

গেম

চোর-পুলিশের খেলা

এস এম তাহমিদ   

৮ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



চোর-পুলিশের খেলা

গাড়িদৌড়ের গেম ‘নিড ফর স্পিড’ খেলেননি এমন গেমার খুঁজে পাওয়া যাবে না। তুমুল জনপ্রিয় এই সিরিজের সর্বশেষ গেম ‘নিড ফর স্পিড : হিট’। নিড ফর স্পিড সিরিজের গেমগুলো ইদানীং তেমন জনপ্রিয়তা পাচ্ছে না দেখে নির্মাতা ইএ চেষ্টা করেছে এবারের গেমটিকে কিছুটা আন্ডারগ্রাউন্ড বা মোস্ট ওয়ান্টেডের গেমপ্লেতে ফিরিয়ে নিতে। দুঃখের বিষয়, গেমটি এখনো নিড ফর স্পিড ভক্তদের ঠিক হৃদয় জয় করার মতো হয়ে ওঠেনি।

শুরুতে দেখা যাবে, গেমারমাত্রই পাম সিটিতে হাজির হয়েছে ‘স্পিড হান্টার শোডাউন সিরিজ’-এ অংশগ্রহণ করার জন্য। শহরজুড়ে হওয়া এই প্রতিযোগিতায় প্রতিদিনই নানা রকম রেসে অংশগ্রহণ করা যাবে। এই বৈধ রেসগুলো গেমপ্লের অর্ধেক। কারণ রাতের বেলার অবৈধ রেসে অংশ নিয়ে পুলিশকে ফাঁকি দিয়ে নিজের সম্মান বাড়ানো গেমের বাকি অংশে। এই বৈধ আর অবৈধ—এ দুই ধরনের রেসের মধ্যেই গেমের কাহিনি এগোতে থাকবে। এ শহরের দুর্নীতিবাজ পুলিশ কর্মকর্তারা কিভাবে রেসারদের শোষণ করছে তা গেমারের সামনে তুলে ধরা হবে, আর সবাই মিলে এসব পুলিশ কর্মকর্তাকে একে একে পরাস্ত করাই গেমটির মূল ফোকাস।

‘নিড ফর স্পিড’ গেমে কেন কিছুটা আরপিজি উপাদান দেওয়া হয়েছে, পুলিশ তাদের কাজ করছে আর সেটা কেন খারাপ হবে, আইন ভাঙা কেন সম্মান বাড়াবে—এমন প্রচুর প্রশ্ন গেমারের মনে আসতে বাধ্য। যে সিরিজ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল শুধু দ্রুতগামী স্পোর্টস কারের নিয়ন্ত্রণ গেমারের হাতে তুলে দিয়ে, সেই গেমে এমন কাহিনির প্রয়োজনীয়তাও প্রশ্নবোধক।

গেমে অনেক জনপ্রিয় গাড়ি আছে। আছে সেগুলো কাস্টমাইজ করার প্রচুর অপশন, এমন সব বডিকিট ও স্পয়লার আছে, যা সামনের দিনগুলোতে বাস্তব দুনিয়ায়ও বিক্রি শুরু হবে। গেমটির গ্রাফিকস অত্যন্ত চমৎকার, ফিজিকস খুব বাস্তবসম্মত নয়, তবে নিড ফর স্পিড অবশ্য সিমুলেশন রেসিং গেমও না। গেমের এআই চ্যালেঞ্জিং, তবে আরেক রেসিং গেম ‘ফোরজা হরাইজন গেম’-এর পর্যায়ের এখনো না, যা দুঃখজনক।

পুলিশের ব্যবহার রেসিং গেমকে আরো বেশি মজার করতে পারত, কিন্তু এনএফএস হিট সেটা খুব ভালোভাবে কাজে লাগাতে ব্যর্থ হয়েছে। ‘মোস্ট ওয়ান্টেড ২০০৫’-এর পর পুলিশের সঙ্গে কেন লড়াই করতে হবে, সেটা ঠিকভাবে ইএ গেমপ্লেতে বসাতে পারছে না, এবারও তার ব্যতিক্রম নয়। তবে পুলিশের কাছে ধরা খেয়ে গেলে গেমারের অর্ধেক টাকা জরিমানা হিসেবে কেটে নেওয়া হবে—এই অপশন গেমারকে অবশ্য পুলিশের থেকে পালাতে উৎসাহ জোগাবে।

যারা নিড ফর স্পিডের ভক্ত, তাদের কাছে গেমটি ভালোই লাগবে, তবে সেই পুরনো স্বাদ আর পাওয়া যাবে না। ফোরজার ভক্তদেরও ভালো লাগবে গেমটির ওপেন ওয়ার্ল্ড, আর প্রচুর কাস্টমাইজেশন অপশন। আই আর কাহিনি আরেকটু ভালো করতে পারলেই আসলে গেমটি অন্যতম সেরা রেসিং গেমের তকমাটা পেয়ে যেত। গেমটি পিসি ছাড়াও প্লেস্টেশন ও এক্সবক্স ওয়ানেও  খেলা যাবে।

 

খেলতে যা যা লাগবে

অন্তত উইন্ডোজ ১০ ৬৪ বিট

ইন্টেল কোরআই ৫ বা সমমানের এএমডি প্রসেসর

৮ গিগাবাইট র‌্যাম

এনভিডিয়া জিটিএক্স ৭৬০ বা এএমডি রেডিওন ৭৯৭০ বা আর৯ ২৮০এক্স জিপিউ

৫০ গিগাবাইট খালি জায়গা

 

বয়স

১৪+

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা