kalerkantho

গেইম

আমার বন্ধু পেড্রো

এস এম তাহমিদ   

১০ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



আমার বন্ধু পেড্রো

ইিদানীং হঠাৎ করেই ছোট ছোট দলের বা প্রতিষ্ঠানের তৈরি ইন্ডি গেইমের জনপ্রিয়তা দ্রুত বাড়ছে। যদিও ‘মাই ফ্রেন্ড পেড্রো’ গেইমটির নির্মাতা ‘ডেডটোস্ট’কে আর নতুন মুখ বলা চলে না। বাস্তবসম্মতর বদলে কিছুটা কার্টুন গ্রাফিকস আর টুডি প্ল্যাটফর্মার গেইমপ্লে নিয়ে গেইমটি যে ২০১৯ সালে এসেও বাজার মাতাতে পারবে, তা হয়তো কিছু বছর আগেও কেউ চিন্তা করেনি।

এতে কাহিনির বালাই নেই বললেই চলে। সাধারণত টুডি প্ল্যাটফর্মার গেইমগুলোতে কাহিনি যত গভীরই হোক না কেন, তার দিকে আসলে গেইমারদের তেমন একটা নজর থাকে না। সে চিন্তা করেই উদ্ভট এক কাহিনির গেইম বলা চলে ‘মাই ফ্রেন্ড পেড্রো’কে।

শুরুতে দেখা যাবে, ভিলেন ‘মাইক দ্য বুচার’-এর হাতে বন্দি গেইমের মূল চরিত্র—এক মুখোশধারী যোদ্ধা। গেইমারকে এ বন্দিদশা থেকে বের হতে হবে। সে কাজের জন্য প্রয়োজনীয় গেইমের নিয়ন্ত্রণ, বিশেষ ফিচার ও অন্যান্য টিপস দেবে একটি কথা বলিয়ে ‘কলা’! আর এই কলার নামই হচ্ছে ‘পেড্রো’। এরপর বাকি গেইমেও গেইমারের বন্ধু হিসেবেই কাজ করবে পেড্রো। মূল ক্যাম্পেইন বেশি বড় নয়, এক বসায়ই গেইমটি সহজেই শেষ করা সম্ভব। কিন্তু প্রতিটি মিশনে হাই স্কোর করাই বড় চ্যালেঞ্জ। গেইমারকে দীর্ঘ সময় ব্যস্ত রাখবে মিশনে হাই স্কোর করার নেশা।

শত্রুদের পরাস্ত করার জন্য আছে আগ্নেয়াস্ত্র, আছে ফ্রাইং প্যান ও অন্যান্য হাঁড়ি-পাতিল। অনেক শত্রুকে একসঙ্গে মোকাবেলা করার জন্য ব্যবহার করতে হবে ‘স্লো মোশন’ অপশন। প্রতিটি কাজ নিখুঁতভাবে করতে পারলে মিশনে সেরা গ্রেড পাওয়া যাবে। গ্রেডগুলোর নামও অদ্ভুত, যেমন—সেরা গ্রেড এ নয়, বি—যার অর্থ ‘ব্যানানা’।

গেইমটি খেলার সময় গেইমার পেড্রোর কাছে কিছু ধারাবর্ণনাও শুনতে পারবেন। শেষের দিকে মিশনগুলো হয়ে উঠবে আরো উদ্ভট, স্কোর করাও হবে বেশ কঠিন। যারা টুডি প্ল্যাটফর্মার অ্যাকশন গেইমের ভক্ত, তাদের কাছে খুবই ভালো লাগবে গেইমটি।

অনেক গেইমারই এর মধ্যে এ গেইমকে ‘জন উইক’ সিনেমার সঙ্গে তুলনা করেছেন।

প্রচুর অ্যাকশন প্ল্যাটফর্মার গেইমটি খেলা যাবে কি-বোর্ড মাউসে, তবে কন্ট্রোলারেই এ ধরনের গেইম বেশি মানায়। গেইমের ফিজিকস, স্লো মোশন, বন্দুক, মার্শাল আর্ট প্রচুর সুনাম কামিয়েছে। গ্রাফিকস বাস্তবসম্মত না হলেও গেইমটি দেখে চোখ জুড়িয়ে যাবে সবার। গেইমটি পিসি ছাড়া নিনটেন্ড সুইচেও খেলা যাবে।

 

খেলতে যা যা লাগবে

৬৪ বিট উইন্ডোজ ৭

ইন্টেল কোর আই ৩ প্রসেসর

৪ গিগাবাইট র‌্যাম

জিটি ৪৪০ বা সমমানের রেডিওন জিপিউ

৪ গিগাবাইট জায়গা।

 

বয়স

১৮+

 

মন্তব্য