kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৬ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

কাকার ফেভারিট ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা

২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কাকার ফেভারিট ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা

রোনালদো, রিভালদো, রোনালদিনহো—থ্রি আরের জাদুতে ২০০২ বিশ্বকাপ জিতেছিল ব্রাজিল। সেই দলে ছিলেন ২০ বছরের তরুণ কাকাও। সেবারই শেষ। গত ২০ বছর ব্রাজিল তো বটেই, লাতিন কোনো দল আর স্বাদ পায়নি ফুটবল বিশ্বকাপের।

বিজ্ঞাপন

এবার কি অতৃপ্তিটা মিটবে? এসি মিলানের হয়ে ২০০৬-০৭ মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগ আর রিয়ালের জার্সিতে ২০১১-১২ মৌসুমে লা লিগা জেতা কাকার বিশ্বাস, কাতারে সেরা সুযোগ লাতিনদের।

আর্জেন্টিনা হারেনি টানা ৩০ ম্যাচের বেশি। ব্রাজিলও খেলছে দুর্দান্ত ফুটবল। স্প্যানিশ দৈনিক মার্কাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এই দুটো দলকে নিজের ফেভারিট বললেন কাকা, ‘ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা দুটো দলই বিশ্বকাপে অসাধারণ খেলেছে। দুর্দান্ত সব খেলোয়াড় রয়েছে দুই দলের। আর্জেন্টিনার বর্তমান দলটা ভীষণ পছন্দ আমার। ওরা অনেক পরিণত আর অসাধারণ এক কোচও আছে। এই বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল দুই দলের বিশ্বকাপ জেতার ভালো সুযোগ আছে। ’

ইউরোপিয়ান দলগুলো এখন প্রীতি ম্যাচের বদলে খেলছে নেশনস লিগ। এ জন্য লাতিনদের সঙ্গে দেখা হচ্ছে না ফ্রান্স, জার্মানি, ইতালির। তাতে হতাশা জানালেন কাকা, ‘আমাদের মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে নেশনস লিগ। ওদের সঙ্গে লাতিনরা খেলার সুযোগ হারাচ্ছে। ব্রাজিলকে দেখুন, লাতিন অঞ্চলে ওরা প্রায় সব ম্যাচ জেতে। ইউরোপিয়ানদের সঙ্গে খেলতে না পেরে প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ ম্যাচ খেলার সুযোগ নষ্ট হচ্ছে। ’

ব্রাজিলের আক্রমণভাগ তারায় ঠাসা রীতিমতো। নেইমার পিএসজির হয়ে ১১ ম্যাচে করেছেন ১১ গোল। লিগে অ্যাসিস্টও সাতটি। ব্রাজিলের জার্সিতে ঘানার বিপক্ষে সর্বশেষ ম্যাচে অ্যাসিস্ট দুটি। রিয়াল মাদ্রিদে আলো ছড়াচ্ছেন ভিনিসিয়ুস, রদ্রিগোরা। ফরোয়ার্ডে রদ্রিগোর সামর্থ্য নিয়ে প্রশ্ন থাকলেও কাকা বিশ্বকাপের দলে চাইলেন এই তরুণকে, ‘ভিনিসিয়ুসকে আমি নেইমারের প্রতিদ্বন্দ্বী বলব না, বরং ও থাকায় নেইমারের ওপর চাপটা কমবে। রাফিনিয়া, রিচার্লিসন, আন্তোনিরা শুধু তরুণ নয় পরিণতও। আমি বিশ্বকাপে রদ্রিগোকে নিতে বলব। ২০ বছর বয়সে আমি বিশ্বকাপ খেলতে পারলে রদ্রিগো পারবে না কেন?’ মার্কা



সাতদিনের সেরা