kalerkantho

শনিবার । ১ অক্টোবর ২০২২ । ১৬ আশ্বিন ১৪২৯ ।  ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

‘অনুমতি না নেওয়াই প্রথম ভুল’

বাংলাদেশ ক্রিকেটের ‘পোস্টার বয়’ সাকিব আল হাসান। নানা সময়ে নানা ঘটনায় শাস্তি যত পেয়েছেন, অনুকম্পা পেয়েছেন এর চেয়ে বহুগুণ বেশি। তবে ক্রিকেট-জুয়াসংশ্লিষ্ট একটি প্রতিষ্ঠানের দূত হওয়ায় সাকিব ইস্যুতে কঠোর অবস্থান নিয়ে কালের কণ্ঠ স্পোর্টসের সঙ্গে কথা বলেছেন বিসিবির ক্রিকেট অপারেশনস কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস

১২ আগস্ট, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



প্রশ্ন : সবাই সাকিব আল হাসানের নতুন চুক্তির বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করছেন। সেখানে তিনি যে বোর্ডের অনুমতি ছাড়াই চুক্তি করেছেন, নিয়মের এই ব্যত্যয় নিয়ে তেমন কথা হচ্ছে না!

জালাল ইউনুস : এটি অবশ্যই চুক্তিভঙ্গ। ওর অনুমতি না নেওয়াটাই প্রথম ভুল। প্লেয়ার্স কন্ট্রাক্টে পরিষ্কার লেখা আছে চুক্তির আগে অনুমতি নিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

এটি নিয়েও আলোচনা হয়েছে। এটি হতে পারে না। ওকে (সাকিব) স্মরণ করিয়ে দেওয়া হয়েছে। ভবিষ্যতে এ রকম হলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রশ্ন : চুক্তির শর্ত মেনে ক্রিকেটাররা কী এন্ডোর্সমেন্ট সত্যি সত্যি করেন? এখানে তো মৌখিক অনুমোদনের সুযোগ নেই, প্রাতিষ্ঠানিক পদ্ধতি অনুসরণ করার কথা। সেটি কি তাঁরা করেন? কথিত আছে, এই নিয়মের ব্যাপারে বোর্ডও নমনীয়।

জালাল : দেখুন, আমরা ক্রিকেটারদের রেসপেক্ট করি, বিশেষ করে সিনিয়র ক্রিকেটারদের। ওরা দেশকে অনেক সার্ভিস দিয়েছে। কিন্তু এটাকে ওরা যদি আমাদের দুর্বলতা মনে করে, সেটি ঠিক নয়। এটি অপ্রত্যাশিত। আর বিজ্ঞাপনি চুক্তির আগে ওরা সাধারণত অনুমতি নেয়। শুনেছি, কিছু কিছু ক্ষেত্রে অনুমতি নেয়নি। সাকিব সর্বশেষ চুক্তির বেলায়ই যেমন নেয়নি। তবে ভবিষ্যতে এটি আর হবে না। যদি এমন কেউ করে, তাহলে বোর্ড চুক্তি অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে।

প্রশ্ন : আপনাদের এই অবস্থান কি অন্য সবার জন্য সতর্কবার্তা?

জালাল : এটি সবার জন্যই বার্তা। আমাদের বেশির ভাগ ক্রিকেটারই সচেতন। কয়েকজন একই প্রস্তাব (জুয়াসংশ্লিষ্ট) নাকচ করেছে। আমাদের দেশের আইনে এটি অনুমোদিত নয়। অন্য দেশে হতে পারে। আমাদের নিজের দেশের আইনকে সম্মান করতে হবে। আজ সাকিবের ব্যাপারে যে সিদ্ধান্ত হয়েছে, তাতে আইসিসিও আশা করি নজর দেবে। এই ব্যাপারে আইসিসির নির্দেশনা চাইব।

আরেকটি কথা। আমরা সব সময় নমনীয়, এটি ঠিক নয়। এসব ব্যাপারে বোর্ড সব সময়ই কঠোর। অনেকে ভেবেছিল সাকিবের ব্যাপারে আমরা নমনীয় হব। সাকিব কেন, আইন সবার জন্য সমান।



সাতদিনের সেরা