kalerkantho

সোমবার । ২৭ জুন ২০২২ । ১৩ আষাঢ় ১৪২৯ । ২৬ জিলকদ ১৪৪৩

জয়েই এএফসি কাপ শুরু করল কিংস

১৯ মে, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জয়েই এএফসি কাপ শুরু করল কিংস

ক্রীড়া প্রতিবেদক : মালদ্বীপের মাজিয়া স্পোর্টস ক্লাবকে ১-০ গোলে হারিয়ে এএফসি কাপ শুরু করেছে বসুন্ধরা কিংস। গতকাল কলকাতার সল্টলেক স্টেডিয়ামে জয় এনে দেওয়া একমাত্র গোলটি গাম্বিয়ান স্ট্রাইকার নুহা মারংয়ের।

প্রথমার্ধেই গোলটা পেয়ে যায় কিংস। শুরু থেকেই আক্রমনাত্মক ফুটবলে এই গোলের খোঁজে ছিলেন রবসন রোবিনহো, নুহা মারংরা।

বিজ্ঞাপন

১১ মিনিটেই রোবিনহো পোস্ট কাঁপিয়েছেন। বাঁ দিক থেকে ইনসাইড কাট করে বক্সে ঢুকেই নেওয়া তাঁর বাঁকানো শট দূরের পোস্টে লেগে ফিরে আসে। তার আগে ইয়াসিন আরাফাতের ক্রসে নুহা মারংয়ের ডাইভিং হেড ব্লকড হয় মাজিয়া ডিফেন্ডারের গায়ে। সেই নুহাই ৩৩ মিনিটে এগিয়ে দিয়েছেন কিংসকে। মিডফিল্ডের একটু নিচ থেকে সোহেল রানার লম্বা বল ছিল প্রতিপক্ষ বক্সের ওপর। নুহার শ্যেন চোখ ছিল তাতে। বলটা বক্সে একটা ড্রপ খেয়ে ওপরে উঠে যেতেই গোলরক্ষক কিরন চেমজংকে এগিয়ে আসতে হয়। কিন্তু বসুন্ধরা কিংস স্ট্রাইকার তাঁর ৬ ফুটি শরীরটা কাজে লাগিয়ে নেপালি গোলরক্ষকের ওপর দিয়েই হেডে বল জালে পাঠিয়ে দিয়েছেন।

স্প্যানিশ লিগে খেলা এই গাম্বিয়ান ফরোয়ার্ড লিগে সেভাবে আলো কাড়তে না পারলেও কিংসের জার্সি গায়ে প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচেই তাই নিজের গুরুত্বটা বুঝিয়ে দিয়েছেন। তবে মাজিয়া কিংসের চাপ সামলে যখনই ওপরে উঠছিল, তাতে বিপদের শঙ্কা ছিল যথেষ্ট। কর্নেলিয়াস দুইবার দুদিক থেকে তারিক ও খালিদকে পেরিয়ে হুমকি হয়ে উঠেছিলেন। গোলরক্ষক আনিসুর রহমান একবার ওয়ান অন ওয়ানে ফেরান তাঁকে। আরেকবার কর্নারে নায়িজের হেড অল্পের জন্য পোস্টের বাইরে দিয়ে যায়।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেও মাজিয়া অস্বস্তিতে রাখে কিংসকে। ১ গোলের লিড মোটেও যথেষ্ট মনে হচ্ছিল না তখন। ম্যাচের এক ঘণ্টা সময়ে কর্নেলিয়াসের একটা কাটব্যাক স্প্যানিশ মিডফিল্ডার টানা ঠিকঠাক কাজে লাগাতে পারেননি। পরমুহূর্তেই বাঁ দিক থেকে কাট করে ঢুকে হামজার নেওয়া শট বেরিয়ে বিশ্বনাথের গায়ে লেগে। এই সময়টায় মাজিয়া টানা বেশ অনেকটা সময় আধিপত্য দেখায় কিংসের অর্ধে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত লিডটা ধরে রেখেই জয়ে টুর্নামেন্ট শুরু করেছে কিংস। অথচ প্রথম ম্যাচেই গোকুলাম কেরালার কাছে ৪-২ গোলে হেরে গেছে ফেভারিট এটিকে মোহনবাগান।



সাতদিনের সেরা