kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১২ কার্তিক ১৪২৮। ২৮ অক্টোবর ২০২১। ২০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

মেরিনার্সসহ হকিতে ত্রিমুখী লড়াই

প্রতিবার শিরোপা লড়াইয়ে থাকা ঊষাকে ছাড়াই হচ্ছে এবারের প্রিমিয়ার লিগ। লড়াইটা এবার তাই আবাহনী, মোহামেডান ও মেরিনার্স—এই তিন দলের। মেরিনার্স গতবারের মতো তারকাবহুল না হলেও লড়াইয়ের সামর্থ্য দেখাচ্ছে।

২২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ক্রীড়া প্রতিবেদক : ‘খেলোয়াড় ছিনতাই’ মামলায় দমেনি ঢাকা মেরিনার ইয়াংস। কাল ঢোল-বাদ্য বাজিয়ে সাড়ম্বরে দলবদল সেরেছে তারা। মোহামেডান ক্লাবের মামলায় সংশয় তৈরি হয়েছিল মেরিনার্স না বেঁকে বসে। কিন্তু সেটিকে আদালতের বিষয় রেখে ২০১৬-র লিগ চ্যাম্পিয়নরা কাল যেভাবে মাঠে এসেছে, তাতে পরিষ্কার জবাবটা তারা মাঠেই দিতে চায়।

যে দুই খেলোয়াড় নিয়ে মোহামেডানের সঙ্গে তাদের দ্বন্দ্ব সেই সারোয়ার মোর্শেদ আর প্রিন্স লালকে ছাড়াই খেলোয়াড় তালিকা জমা দিতে হয়েছে মেরিনার্সকে। ওই দুজনকে আগের রাতেই বিশেষ ব্যবস্থায় নিবন্ধন করিয়েছে মোহামেডান। মেরিনার্সে জাতীয় দলে খেলা খেলোয়াড়ের মধ্যে আছেন মামুনুর রহমান, মিলন হোসেন, ফজলে রাব্বি, সোহানুর রহমান ও ইরফানুল হক। এর বাইরে আছেন গোলরক্ষক বিপ্লব কুজুর, সাদিকুল ইসলাম, পারভেজ হোসেন, আশিকুর রহমান, মেহেদী হাসান, সাইজুদ্দিন, রোহান সাব্বির, তাসিন আলী, শাহরুখ শাহ, সাহিদুর রহমান ও খলিলুর রহমান। দলের বড় শক্তি কোচ মামুনুর রশিদও। এই খেলোয়াড়দের সঙ্গে বিদেশি যোগ করে তিনি শিরোপা লড়াইয়ে থাকারই ঘোষণা দিয়েছেন, ‘মেরিনার্স যে দল করেছে, এই দল নিয়ে অবশ্যই আমরা শিরোপার লড়াই করব। ডিফেন্সে চয়নের নেতৃত্ব থাকবে, ওপরে মিলনের মতো ভালো স্ট্রাইকার পেয়েছি আমরা। এর সঙ্গে ভালো কিছু বিদেশি যোগ করে আবাহনী-মোহামেডানকে চ্যালেঞ্জ জানানোর জন্যই আমরা নামব।’

মোহামেডান ক্লাবে ভাঙচুরের অভিযোগে মেরিনার্সের সাধারণ সম্পাদক হাসানউল্লা খান রানাসহ বেশ কয়েকজন ক্লাব কর্মকর্তার নামে মামলা হয়েছে। গত পরশুই সেই মামলায় জামিন নিয়ে কাল দলবদলের আনুষ্ঠানিকতায় খেলোয়াড়দের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন তাঁরা। হাসানউল্লা খানই জানিয়েছেন মোহামেডানকে জবাবটা দিতে চান তাঁরা মাঠে, ‘মেরিনার্স মাঠের খেলা মাঠেই রাখবে। মামলার বিষয়টি আমরা আইনগতভাবে মোকাবেলা করছি। তবে মোহামেডানের মতো বড় ক্লাবের কাছ থেকে এমন কিছু মোটেও প্রত্যাশিত না। এই জবাবটা আমরা তাই মাঠেই দিতে চাই।’ মোহামেডান গত পরশু বনানীর একটি রেস্টুরেন্টে বিশেষ ব্যবস্থায় ছয় খেলোয়াড়ের জন্য টোকেন নিয়েছে। এর মধ্যে শাওন ও প্রিন্সের টোকেন জমাও দিয়েছে তারা। আজ ফেডারেশনে বাকি খেলোয়াড়দের নিয়ে দলবদল সারার কথা তাদের। প্রতিবার শিরোপা লড়াইয়ে থাকা ঊষাকে ছাড়াই হচ্ছে এবারের প্রিমিয়ার লিগ। লড়াইটা এবার তাই আবাহনী, মোহামেডান ও মেরিনার্স—এই তিন দলের। মেরিনার্স গতবারের মতো তারকাবহুল না হলেও লড়াইয়ের সামর্থ্য দেখাচ্ছে। মোহামেডান কোচ মওদুদুর রহমানও ত্রিমুখী লড়াই-ই দেখছেন, ‘আবাহনীর সংগ্রহ বেশ ভালো। মোহামেডানও প্রত্যাশিত দলই করেছে। মেরিনার্সও লড়াইয়ে থাকার মতোই। এই তিন দলের মধ্যে শেষ পর্যন্ত হয়তো বিদেশিরাই পার্থক্য গড়ে দেবে।’ বিদেশি চূড়ান্ত করেনি এখনো কোনো দলই। আগের মতো ভারতীয়, পাকিস্তানিদের সঙ্গে মালয়েশিয়ান খেলোয়াড়দের দিকেই হাত বাড়াচ্ছে ক্লাবগুলো।



সাতদিনের সেরা