kalerkantho

শনিবার । ৫ আষাঢ় ১৪২৮। ১৯ জুন ২০২১। ৭ জিলকদ ১৪৪২

বেলফোর্টের হ্যাটট্রিকে আবাহনীর বড় জয়

ক্রীড়া প্রতিবেদক   

৮ মে, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



বেলফোর্টের হ্যাটট্রিকে আবাহনীর বড় জয়

হঠাৎ জ্বলে উঠেছে আবাহনী। আগের ম্যাচে ব্রাদার্স ইউনিয়নকে উড়িয়ে দেওয়ার পর গতকাল তারা ৬-০ গোলে হারিয়েছে রহমতগঞ্জকে। এই লিগে তাদের বড় জয়ের নায়ক হাইতিয়ান বেলফোর্টের গোলসংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৯। ১৫ ম্যাচে ৩২ পয়েন্ট নিয়ে ঐতিহ্যবাহী দলটি এখন দ্বিতীয় স্থানে। এক ম্যাচ কম খেলে শেখ জামালও একই সংগ্রহ নিয়ে গোল গড়ে তৃতীয়।

রহমতগঞ্জের বিপক্ষে হ্যাটট্রিকের সুবাদে বেলফোর্ট শিরোনাম হলেও খেলার মূল কারিগর রাফায়েল আগুস্তো। এই ব্রাজিলিয়ান মধ্যমাঠে খেলাটা তৈরি করেছেন এবং বেলফোর্টের দুই গোল তৈরি হয়েছে তাঁর পায়ে।  মৌসুমের শুরুতে চোট থাকায় তাঁর খেলাটা চোখে পড়েনি সেভাবে। চোট সারিয়ে রাফায়েল খোলস ছেড়ে বের হতেই ইতিবাচক প্রভাব পড়তে শুরু করেছে আকাশি-নীলের খেলায়। ফিরতি লেগের শুরুতে বাংলাদেশ পুলিশের সঙ্গে ড্র করে পয়েন্ট হারালেও পরের দুই ম্যাচে দুর্দান্ত খেলেছে। এই ধারা বজায় থাকলেই পিছিয়ে পড়া আবাহনী রানার্স আপ হওয়ার পথে থাকতে পারে। কারণ শীর্ষে থাকা বসুন্ধরা কিংস ১১ পয়েন্টের বিশাল ব্যবধানে এগিয়ে আছে। তাই আবাহনীর সঙ্গে কার্যত রানার্স আপের লড়াই এখন শেখ জামালের সঙ্গে।  

ম্যাচের শুরু থেকেই আবাহনীর দাপট। তবে ২৭ মিনিটে তারা এগিয়ে যায় আত্মঘাতী গোলে। বাঁ দিক দিয়ে বাড়ানো বেলফোর্টের থ্রু বল ধরে রায়হান বক্সে ক্রসে পাঠান সানডের উদ্দেশ্যে। সেটি ক্লিয়ার করতে গিয়েই নিজেদের জালে বল ঠেলেন খুরশেস বেকনাজারভ। ৩৭ মিনিট বাদে ব্যবধান বড় করেন বেলফোর্ট। ব্রাজিলিয়ান রাফায়েল আগুস্তোর কাটব্যাকে গোলমুখের জটলা থেকে বাঁ পায়ে প্লেসিংয়ে গোল উৎসব শুরু করেন। ৪২ মিনিটে এই ব্রাজিলিয়ানের সঙ্গে দুর্দান্ত বোঝাপড়ায় আবাহনী এগিয়ে যায় ৩-০ গোলে। এবার দুই ডিফেন্ডারকে পরাস্ত করে রাফায়েল দেন মাপা ক্রস, তাতে হেড করে বেলফোর্ট বল পৌঁছে দেন রহমতগঞ্জের জালে। বেলফোর্টের জোড়া গোলে ৩-০ গোলের স্বস্তির লিড নিয়ে আবাহনী বিরতিতে যায়।

দ্বিতীয়ার্ধেও সেই আধিপত্য বজায় রেখে তারা খেলা শুরু করে। ৬২ মিনিটে বেলফোর্ট হ্যাটট্রিক পূরণ করেন মামুন মিয়ার বাড়ানো এক বলে। মৌসুমে প্রথম হ্যাটট্রিকের দেখা পান এই হাইতিয়ান ফরোয়ার্ড। মিনিট তিনেক বাদে আগের গোলে অ্যাসিস্ট করা মামুন মিয়ার পায়েও গোল! এই ডিফেন্ডার আবাহনীর প্রথম একাদশে সচরাচর থাকেন না। গতকাল একাদশে শুরু করা মামুন সানডের সঙ্গে ওয়ান টু খেলে ডান দিক থেকে দুর্দান্ত এক শটে বল জালে পৌঁছে দেন অবিশ্বাস্যভাবে। ৮৫ মিনিটে আবাহনীর ষষ্ঠ গোল করেন মাসি সাইগানি। ফুলব্যাক রায়হানের কাটব্যাকে বক্সের অনেক বাইরে থেকে নেওয়া এই আফগানের বাঁ পায়ের শটটি বাঁক খেয়ে রহমতগঞ্জের জালে পৌঁছে গেলে আবাহনী মৌসুমের বড় জয়ের দেখা পায়।

দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে পুলিশ মোহাম্মদ জুয়েলের জোড়া গোলে বারিধারাকে হারিয়েছে ২-১ গোলে। পুলিশের আধিপত্যে ম্যাচ শুরু হলেও প্রথমার্ধে গোলের দেখা পায়নি। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে বারিধারা এগিয়ে যায় পেনাল্টি গোলে, ৬৩ মিনিটে উজবেক ফরোয়ার্ড ফজিলভের গোলে তারা লিড নেয়। এরপর জুয়েলের ম্যাজিকে পুলিশ চতুর্থ জয় পায়। ৭৪ মিনিটে ক্রিশ্চিয়ান ককোর পাস থেকে জুয়েল গোল করে সমতা ফেরান ম্যাচে। ৮৬ মিনিটে আখমেদভের পাসে তিনি জয়সূচক গোলটি করেন। এই জয়ে ১৫ ম্যাচে পুলিশের সংগ্রহ ১৬ পয়েন্ট।



সাতদিনের সেরা