kalerkantho

বুধবার । ১৫ আশ্বিন ১৪২৭ । ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০। ১২ সফর ১৪৪২

মেসিই ‘এক্স ফ্যাক্টর’

১৪ আগস্ট, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



মেসিই ‘এক্স ফ্যাক্টর’

ক্রীড়া প্রতিবেদক : পক্ষে-বিপক্ষের সব অঙ্কে তিনি আছেন প্রবলভাবে। নেপোলির বিপক্ষে চোট পাওয়া মেসিকে দেখে হয়তো বায়ার্ন মিউনিখ নিজেদের অঙ্ক মিলিয়ে ফেলেছিল তাৎক্ষণিকভাবে। কিন্তু পরদিন ট্রেনিংয়ে আবার মেসির উপস্থিতি বাভারিয়ানদের সেই অঙ্ক ভণ্ডুল করে বার্সেলোনাকে দেখাচ্ছে সেমিফাইনালের স্বপ্ন। ‘কাতালান-বাভারিয়ান’ মিনি ক্লাসিকোর ভাগ্য নিয়ন্তা যেন লিওনেল মেসি। তিনি স্বমহিমায় থাকলে বার্সেলোনাও টিকে থাকে, নইলে বায়ার্ন দোর্দণ্ড প্রতাপে উঠে যায় চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিফাইনালে।

বায়ার্ন মিউনিখের প্রতাপ নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। বিশেষ করে এই আসরে ১৩ গোল করা মার্টিন লেভানদোস্কির গোলমেশিনে চড়ে তারা ছুটছে। পোলিশ স্ট্রাইকারের সঙ্গে দারুণ সংগত করছেন মুলার-তোলিসোরা। তাই কঠিন বাধাও আর কঠিন থাকছে না। অ্যাওয়ে ম্যাচে ৩-০ গোলে এবং এরপর নিজেদের মাঠে চেলসিকে ৪-১ গোলে উড়িয়ে দিয়ে তারা আজ বার্সার মুখোমুখি। তাই কাতালানদের বিপক্ষেও বুন্দেসলিগা চ্যাম্পিয়নদের ফেভারিট মানা হচ্ছে। করোনা বিরতির পর কিকে সেতিয়েনের বার্সেলোনা খুব ভালো খেলছে না যে। লুইস সুয়ারেস, গ্রিয়েজমানের মতো তারকারা থেকেও যেন নেই, দলের সবাই চেয়ে থাকেন লিওনেল মেসির দিকে। জাদুকর তার ফুটবল ‘প্যান্ডোরার বাক্স’ খুললেই কিছু হবে, নইলে খুব কঠিন। তেমনি আজ সেমিফাইনালের দুয়ারে দাঁড়িয়েও সব দৃষ্টি ৩৩ বছর বয়সী এই আর্জেন্টাইনের দিকে। তিনিই পারেন শুধু সেমির দুয়ার খুলতে।

২০০৯ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের পথেও মেসি এই কঠিন কাজটা করেছিলেন। বায়ার্ন মিউনিখের বিপক্ষে কোয়ার্টার ফাইনালে তিনি করেছিলেন দুই গোল। পরের আসরের কোয়ার্টার ফাইনালে আর্সেনালের জালে বল পাঠিয়েছিলেন চারবার! ২০১১ সালে সেমিফাইনালে তারা সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে গিয়ে রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়েছে মেসির জোড়া গোলে। অসম্ভবকে সম্ভব করার অনেক নজির মেসি গড়েছেন। তাই আজকের ম্যাচের একাদশে অনিশ্চিত হলেও আন্তোয়ান গ্রিয়েজমান আশাবাদী, ‘বায়ার্ন ভালো খেলছে এবং তারা খুব আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে খেলছে। তবে তাদের বধ করার অস্ত্র আমাদেরও আছে।’

সেই অস্ত্র অবধারিতভাবে লিওনেল মেসি। তাতে এটাও ধরে নেওয়া যায় যে বায়ার্ন কোচও এ আর্জেন্টাইনকে বোতলবন্দি করে রাখার ছক কষছেন। আর বায়ার্নের গোলমেশিন লেভেনদোস্কিও দারুণ এক ম্যাচের স্বপ্ন দেখছেন, ‘আমাদের ফেভারিট হিসেবে দেখলেও বার্সার সঙ্গে দুর্দান্ত লড়াই হবে। তবে আগে গোল পেয়ে গেলে ম্যাচ সহজ হয়ে যাবে।’ সেই গোলটি কে করবেন, মেসি নাকি লেভানদোস্কি? বার্সার সুবিধা হলো মেসি গোল করাতেও সমান দক্ষ!

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা