kalerkantho

শুক্রবার। ২৬ আষাঢ় ১৪২৭। ১০ জুলাই ২০২০। ১৮ জিলকদ ১৪৪১

পিছিয়ে গেল সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ

৩০ জুন, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পিছিয়ে গেল সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ

ক্রীড়া প্রতিবেদক  : করোনা মহামারিতে স্থগিত হয়েছে একের পর এক টুর্নামেন্ট। সেই তালিকায় এবার যোগ হলো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ ফুটবলও। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে এ বছর সেপ্টেম্বরে ঢাকায় হওয়ার কথা ছিল ‘দক্ষিণ এশিয়ার বিশ্বকাপ’খ্যাত টুর্নামেন্টটি। কিন্তু করোনা পরিস্থিতির উন্নতি না হওয়ায় স্থগিত করা হয়েছে সেটা। গতকাল সাফের সাত দেশের ফুটবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদকদের অনলাইন সভায় নেওয়া হয়েছে এই সিদ্ধান্ত। টুর্নামেন্টটি আগামী বছরের কোনো এক সময়ে অনুষ্ঠিত হতে পারে ঢাকাতেই।

আগের দিনই সাফের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুল হক হেলাল ইঙ্গিত দিয়েছিলেন টুর্নামেন্ট পেছানোর। গতকাল সভা শেষে এক ভিডিও বার্তায় তিনি নিশ্চিত করলেন সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের পিছিয়ে যাওয়াটা, ‘সব দেশের ফেডারেশনের কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে আমাদের আলোচনা হয়েছে। এ বছরের সেপ্টেম্বরে যে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ হওয়ার কথা ছিল সেটা আগামী বছর পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে। আগামী বছর প্রতিযোগিতাটি কখন হবে, সেটা নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে আমরা পরে নির্দিষ্ট তারিখ জানিয়ে দেব।’

অক্টোবর-নভেম্বরে বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচ নিয়ে ব্যস্ত থাকবে দলগুলো। অক্টোবরের শেষ দিকে আছে এএফসি কাপের ম্যাচ। এ জন্যই আগামী বছর পিছিয়ে গেছে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম আগের দিন জানিয়েছিলেন, আগামী বছর ফেব্রুয়ারি বা মার্চে হতে পারে এটা। সে ক্ষেত্রে মার্চে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষের অংশ হতে পারবে আসরটি।

শুধু সিনিয়র সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ নয়, এ বছর সাফের তিনটি বয়সভিত্তিক টুর্নামেন্টও হওয়ার কথা। এই টুর্নামেন্টগুলোও গতকাল পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ নিয়ে আনোয়ারুল হক হেলাল জানালেন, ‘এ বছর বয়সভিত্তিক সাফের যে প্রতিযোগিতাগুলো হওয়ার কথা ছিল, সেগুলোর ব্যাপারে সেপ্টেম্বরে আমরা আবার বসব। করোনাভাইরাস পরিস্থিতি যদি অনুকূলে আসে, তাহলে হয়তো ডিসেম্বরে একটি বা দুটি টুর্নামেন্ট আয়োজন করা সম্ভব হবে। তা না হলে এগুলোও আগামী বছর পর্যন্ত বাতিল করা হবে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা