kalerkantho

শনিবার । ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৩০  মে ২০২০। ৬ শাওয়াল ১৪৪১

ফাঁকা গ্যালারিতেও ক্রিকেট চান ল্যাঙ্গার

৬ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ফাঁকা গ্যালারিতেও ক্রিকেট চান ল্যাঙ্গার

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের সিরিজটি হওয়ার কথা ফাঁকা গ্যালারিতে। প্রথম ওয়ানডের পরই করোনা আতঙ্কে বাতিল সেই সিরিজ। এর পর থেকে গৃহবন্দি ক্রিকেটাররা। শুধু অস্ট্রেলিয়া নয়, ক্রিকেট বন্ধ পৃথিবীর সব দেশে। তবে অস্ট্রেলিয়ান কোচ জাস্টিন ল্যাঙ্গার এভাবে দিন না কাটিয়ে ডাক দিলেন ক্রিকেট ফেরানোর। বিবিসি রেডিওকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আকুতি জানালেন ফাঁকা গ্যালারিতে হলেও ক্রিকেটটা অন্তত হোক, ‘আমরা যখন খেলা শুরু করি তখন সবার বয়স কম থাকে। কোনো দর্শক থাকে না তখন। হয়তো কারো বাবা-মা এসেছে, দেখেছে। ভালোবাসেন বলেই ক্রিকেট খেলেন আপনি। ভালো লাগে সতীর্থদের সঙ্গে খেলতে। অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটাররা ভাগ্যবান সব সময়ই ওরা ভরা গ্যালারিতে খেলে এসেছে। তবে ফাঁকা গ্যালারি থাকলেও টিভি ও রেডিওর মাধ্যমে ক্রিকেটপ্রেমীদের বিনোদন দেওয়া সম্ভব। এরও আলাদা একটা মূল্য আছে।’

টানা বাড়িতে থাকায় পরিবারের কাছে এসেছেন তারকারা। আবার হাঁপিয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যাও কম নেই একেবারে। তাই বাড়ছে পারিবারিক অশান্তি, মাদক সেবনসহ নানা অপরাধ। এ জন্যও দ্রুত মাঠে খেলা ফেরা উচিত বলে মনে করেন ল্যাঙ্গার, ‘এখন পরিবারের সঙ্গেই আছি। রাতের খাবার রান্না করছি। নিজের বিছানায় ঘুমাতে পারছি। অথচ বছরের ১০ মাস বাড়ির বাইরে থাকতে হয় আমাকে। এভাবে ঘরে থাকায় পুরো সমাজটাই বদলে যাবে বলে বিশ্বাস আমার। আবার উল্টোটাও হচ্ছে। অস্ট্রেলিয়ায় মানসিক সমস্যার অনেক খবর দেখছি এখন। হিংস্রতা বাড়ছে, মাদক সেবনও বেড়েছে। এই সময়টা আসলে থেমে থাকার, বুক ভরে নিঃশ্বাস নেওয়ার আর ভারসাম্য খুঁজে নেওয়ার। শুধু ক্রীড়াবিদদের জীবনেই নয়, বিশ্বের সব পেশার মানুষের জন্যই ব্যাপারটা এক।’ বিবিসি

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা