kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ জানুয়ারি ২০২০। ১০ মাঘ ১৪২৬। ২৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

মুখোমুখি প্রতিদিন

নিজেকে সব সময় ব্যাটিং অলরাউন্ডার ভাবি

১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নিজেকে সব সময় ব্যাটিং অলরাউন্ডার ভাবি

ইনজুরি সঙ্গী করে ফিরেছেন ভারত থেকে। যে কারণে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের প্রথম দুটি ম্যাচও খেলতে পারেননি। কাল চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের হয়ে প্রথমবারের মতো মাঠে নামেন মাহমুদ উল্লাহ। জয়ের পর সংবাদ সম্মেলনে নিজের প্রত্যাবর্তন, বিপিএল, জাতীয় দলও নিয়ে কথা বলেন অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার

প্রশ্ন : আপনার হ্যামস্ট্রিং ইনজুরির এখন কী অবস্থা?

মাহমুদ উল্লাহ : পুরোপুরি সেরে গেছে। আমি চাইছিলাম, শতভাগ ফিট হয়ে যেন মাঠে নামতে পারি। তবে আজ শেষ দিকে আউট হয়ে যাওয়ায় আমি হতাশ। ইমরুলকে নিয়ে শেষ করে আসতে চেয়েছিলাম। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত এমন বলে আউট হয়েছি, যেখানে মনে হয় রান করার ভালো সুযোগ ছিল।

প্রশ্ন : চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের পারফরম্যান্স কেমন হচ্ছে?

মাহমুদ : আমরা তিন ম্যাচে দুটি জয় পেয়েছি। এটা আমাদের আত্মবিশ্বাস দেবে যখন চট্টগ্রাম যাব। চেষ্টা করব জয়ের ধারা যেন ধরে রাখা যায়। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট এমন, আপনি যদি মোমেন্টাম হারিয়ে ফেলেন সেটা ফিরে পাওয়া খুব কঠিন হয়ে যায়। এ ফরম্যাটে ভালো ক্রিকেট খেলাটাও অনেক গুরুত্বপূর্ণ। কারণ যদি ভুলগুলা বারবার করতে থাকেন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে এটা খুবই ক্ষতিকর হয় দলের জন্য।

প্রশ্ন : আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সেভাবে বোলিং করতে দেখা যায় না। নিজের বোলিং নিয়ে ভাবনা কী?

মাহমুদ : আমি সব সময় নিজেকে ব্যাটিং অলরাউন্ডার ভাবি। ব্যাটিংয়ে অগ্রাধিকার দিই; বোলিংটা বাড়তি। আর জাতীয় দলে তো আফিফ, মোসাদ্দেকের মতো অন্য ভালো বোলারও আছে।

প্রশ্ন : আফিফ-মোসাদ্দেককে কি আপনার চেয়ে ভালো বোলার মনে করেন?

মাহমুদ : ইনজুরির কারণে সাত মাস বোলিং করিনি। তখন মোসাদ্দেক ভালো করেছে। আফিফও খুব ভালো স্পিনার। ওরা ছন্দে আছে। তবে আন্তর্জাতিক ম্যাচে অবশ্যই চ্যালেঞ্জ নিতে চেষ্টা করব। চেষ্টা করব নিজেকে প্রমাণ করতে।

প্রশ্ন : সাকিব আল হাসানের অনুপস্থিতিতে অলরাউন্ডার হিসেবে নিজেকে সে জায়গায় দেখেন?

মাহমুদ : সাকিবের সঙ্গে নিজের তুলনা করা ঠিক হবে না। একজন সাকিব এক প্রজন্মে পাওয়া খুব কঠিন। সাকিব একজনই। আমরা সবাই জানি, ক্রিকেটীয় দক্ষতা ও ক্রিকেটীয় মস্তিষ্কে ওর সামর্থ্য কতটুকুন। তবে আমিও চেষ্টা করব। ওর মতো বোলিংয়ে যদি অবদান রাখতে পারি, তাহলে খুশি হব।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা