kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৮ জানুয়ারি ২০২০। ১৪ মাঘ ১৪২৬। ২ জমাদিউস সানি ১৪৪১     

আনুশকাকে কোহলির উপহার

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আনুশকাকে কোহলির উপহার

গত পরশু ছিল বিরাট কোহলি-আনুশকা শর্মা জুটির দ্বিতীয় বিবাহবার্ষিকী। পেশাদার খেলোয়াড়দের এমন বিশেষ দিনে ছুটি নেওয়ার উপায় নেই। উপলক্ষটা তাই ব্যাট হাতেই উদ্‌যাপন করেছেন ভারতীয় অধিনায়ক। বিয়ের দিন ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে খেলেছেন ২৯ বলে ৭০ রানের বিস্ফোরক ইনিংস। প্রথম ভারতীয় হিসেবে দেশের মাটিতে টি-টোয়েন্টিতে ১০০০ রানের কীর্তিও তাঁর। সিরিজ সেরার পুরস্কার নিয়ে নিজের এই ইনিংসটি স্ত্রীকে উপহার হিসেবে উৎসর্গ করেছেন সময়ের সেরা এই ব্যাটসম্যান, ‘আমার দ্বিতীয় বিবাহবার্ষিকীতে এই ম্যাচটি ছিল বিশেষ কিছু। স্ত্রীকে এটাই আমার উপহার।’

এর আগে কোহলি ম্যাচ খেলতে নেমেছিলেন স্ত্রীর সঙ্গে নিজের একটি ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে। সেখানে লেখা, ‘শুধু ভালোবাসা ছাড়া বাস্তবে আর কিছুই নেই। যখন সৃষ্টিকর্তা এমন একজনকে আপনার কাছে পাঠান, যে প্রতিনিয়ত অনুভূতিটা ফিরিয়ে দেয়, তখন একটা জিনিসই মনে হয়—আমি কতটা কৃতজ্ঞ তার কাছে।’

রোহিত শর্মা, লোকেশ রাহুল, বিরাট কোহলির তাণ্ডবে সিরিজের শেষ টি-টোয়েন্টিতে শুরুতে ব্যাট করে ভারত গড়ে ২৪০ রানের পাহাড়। জবাবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ থামে ৮ উইকেটে ১৭৩-এ। ৬৭ রানের জয়ে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জেতে ভারত। কিয়েরন পোলার্ড ৬৮ ও শিমরট হেটমায়ার করেন ৪১ রান। ম্যাচ শুরুর আগে রোহিত শর্মা জানিয়েছিলেন, বিশ্বকাপ নয় আপাতত সিরিজ জিততে চায় ভারত। আর লক্ষ্য পূরণের পর অধিনায়ক বিরাট কোহলি জানালেন, ‘সাধারণত করি না এমন কিছু করার সুযোগ এসেছিল আমার সামনে। রাহুলকে বলেছিলাম, তুমি শেষ পর্যন্ত ক্রিজে থাকো আর আমি বল মাঠের বাইরে পাঠানোর চেষ্টা করছি। সেটাই হয়েছে। শুরু থেকেই বল আসছিল ব্যাটে। জানি সব ফরম্যাটে অবদান রাখতে পারি দলের জন্য। অধিনায়ক হওয়ায় ব্যাপারটা চাপের হলেও উপভোগ করছি আমি।’

রোহিত শর্মা ৭১, ম্যাচ সেরা লোকেশ রাহুল ৯১ আর বিরাট কোহলি খেলেন ৭০* রানের ইনিংস। টি-টোয়েন্টিতে এবারই প্রথম কোনো ইনিংসে তিন ব্যাটসম্যান খেলেছেন ৭০ বা বেশি রানের ইনিংস। আর ৫ ছক্কায় নতুন মাইলফলকে রোহিত শর্মা। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে ৪০০ ছক্কার মাইলফলকে তিনি। ক্রিস গেইল ৫৩৪, শহীদ আফ্রিদি ৪৭৬ আর রোহিতের ছক্কা ৪০৪টি। ভারত এই ছন্দ ধরে রাখতে পারলে অন্যতম দাবিদারই হবে আগামী বছর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের। ক্রিকইনফো

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা