kalerkantho

বুধবার । ২২ জানুয়ারি ২০২০। ৮ মাঘ ১৪২৬। ২৫ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

মাশরাফি বললেন অন্য কথা

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মাশরাফি বললেন অন্য কথা

ক্রীড়া প্রতিবেদক : অধিনায়ক হিসেবেই গত জুলাইতে শ্রীলঙ্কায় ওয়ানডে সিরিজ খেলতে যাওয়ার কথা ছিল তাঁর। রওনা হওয়ার আগের দিন সংবাদ সম্মেলনেও আসেন। সেটি সেরে অনুশীলনে গিয়েই চোটে পড়া মাশরাফি বিন মর্তুজার আর যাওয়া হয়নি কলম্বো। কাল বিপিএলে ঢাকা প্লাটুনের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামার আগে মাঝে খেলাও হয়নি আর। করেননি আর কোনো সংবাদ সম্মেলনও। খেলা এবং সংবাদমাধ্যম থেকে দূরে থাকার এই সময়টিতে দেশের ক্রিকেটেও কত পালাবদল ঘটে গেছে। জুয়াড়ির প্রস্তাব গোপন করে নিষিদ্ধ হয়েছেন দেশের সবচেয়ে বড় তারকা ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। তাঁর জায়গায় টেস্ট অধিনায়ক হয়ে গেছেন মমিনুল হকও।

হতে না হতেই দলের ব্যর্থতার দায় সাংবাদিকদের ওপর চাপিয়েছেন মমিনুল। বিপিএলে নিজের প্রথম ম্যাচে রান করে একই সুর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আরেক ব্যর্থ ক্রিকেটার ইমরুল কায়েসেরও। অনেক দিন পর আবার সংবাদ সম্মেলনে আসা মাশরাফি সতীর্থদের এমন মনোভাব নিয়ে কী ধারণা পোষণ করেন, জানতে চাওয়া হলো তা। ‘আমার কাছে মনে হয় আপনাদেরও এই বিষয়গুলো ব্যক্তিগতভাবে না নেওয়া উচিত’—প্রথমেই এ রকম বলে নেওয়া মাশরাফি সতীর্থদের সমস্যার কারণও বের করার চেষ্টা করেছেন, ‘অনেকেই এসব সামলে অভ্যস্ত নয়। অনেক সময় দেখা যায় অনেক খেলোয়াড় বাইরের ব্যাপারগুলো নিয়ে নেয়।’

নিয়ে নিজেরা আক্রান্ত হওয়া ক্রিকেটারদের জন্য পরামর্শও আছে মাশরাফির, ‘পেশাদারি ভাবটা ধরে রাখতে হবে। আমি খারাপ করলে আপনি লিখতে বাধ্য। আবার ভালো করলেও আপনি বাধ্য লিখতে। সুতরাং এটিকে ব্যক্তিগতভাবে না নিয়ে চললেই ভালো। অনেকে এগুলো (প্রতিবেদন) পড়ে বা দেখে। হয়তো সেই চাপটা মাথায়ও নিয়ে নেয়। পেশাদার জীবনে যেটির প্রয়োজন নেই। মিডিয়াকে দোষ দিয়ে তো ভালো খেলতে পারার সুযোগ কম। মিডিয়ায় লেখালেখির কারণে যদি ঝামেলা তৈরি হয়, তাহলে সেটি উপেক্ষা করা ভালো। বড় খেলোয়াড়রাও তা-ই করেন। আমার পরামর্শ হলো আপনি খেলোয়াড়, খেলা নিয়েই চিন্তা করুন। বাইরের চিন্তা বাদ দিন।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা