kalerkantho

বুধবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৩ রবিউস সানি     

মুখোমুখি প্রতিদিন

ঠিক করেছিলাম সবার আগে নিজেকে সন্তুষ্ট করব

২০ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঠিক করেছিলাম সবার আগে নিজেকে সন্তুষ্ট করব

নিয়মিত অধিনায়কের অনুপস্থিতিতে জাতীয় লিগের শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে অধিনায়কোচিত পারফরম্যান্স নুরুল হাসান-এর। অপরাজিত ১৫০ রানের ইনিংসে ম্যাচসেরা হওয়া এই উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান উঁচিয়ে ধরলেন খুলনার রেকর্ড সপ্তম শিরোপাও। দুয়ে মিলে উচ্ছ্বসিত এই ক্রিকেটার মুখোমুখি হলেন কালের কণ্ঠ স্পোর্টসের

কালের কণ্ঠ স্পোর্টস : শিরোপা জেতার অনুভূতি কেমন?

নুরুল হাসান : দারুণ অনুভূতি। এ জন্য যে গত বছর জাতীয় লিগে আমাদের পারফরম্যান্স আশানুরূপ ছিল না। অথচ এর আগে টানা কয়েক বছর আমরা ছিলাম দারুণ ছন্দে। এবার তাই লক্ষ্য ছিল আমরা ঘুরে দাঁড়াব।

প্রশ্ন : নিয়মিত অধিনায়ক আব্দুর রাজ্জাক না থাকায় ঢাকার বিপক্ষে এই শেষ ম্যাচটি কতটা কঠিন ছিল?

নুরুল : কঠিন তো ছিলই। রাজ ভাই আমাদের মূল বোলার। তিনি না থাকায় উইকেট নেওয়ার মতো বোলারও কমে যায় আমাদের। আবার ম্যাচ চলাকালীন দুই পেসার রুবেল (হোসেন) এবং (আব্দুল) হালিমও ইনজুরিতে পড়ে যায়। প্রথম ইনিংসের শেষ দিক থেকেই আর তাদের পাইনি। পরে বোলিং না করলেও প্রথম ইনিংসের শেষ উইকেটে হালিম দারুণ একটি পার্টনারশিপে (৫১ রানের) আমাকে সঙ্গ দিয়েছে। সেটিই ম্যাচে আমাদের অনেক এগিয়ে দিয়েছিল। আর দ্বিতীয় ইনিংসে জিয়া (জিয়াউর রহমান) ভাই দারুণ বোলিং করে ঘাটতি পুষিয়ে দিয়েছেন।

প্রশ্ন : নিজের পারফরম্যান্স নিয়েও নিশ্চয়ই খুব খুশি?

নুরুল : বড় ইনিংস খেলতে পারার সন্তুষ্টি তো আছেই। তার ওপর ম্যাচটি আমরা জিতেছি। দুয়ে মিলে খুশি না হওয়ার কোনো কারণ নেই। আমি ফিনিশ করে আসতে পেরেছি। তা ছাড়া ভালো লাগার বিষয়ও আছে। যে কয়টি ভালো ইনিংস খেলেছি, প্রতিটিতেই অপরাজিত ছিলাম।

প্রশ্ন : জাতীয় লিগে ভালো করার পর এবার নিশ্চয়ই জাতীয় দলেও ফিরতে চান?

নুরুল : সেটি অবশ্যই চাই। কিন্তু সেটি তো আমার হাতে নয়। তাই আমি ঠিক করেছি, অন্যকে নয়, সবার আগে নিজেকে সন্তুষ্ট রাখার চেষ্টা করব। পারফরম করার চাপ ছিল। আমি খেয়াল করে দেখলাম, চাপে থাকলেই আমার সেরাটা বেরিয়ে আসে। এবার যে কয়টি ম্যাচই খেলেছি, চেষ্টা করেছি নিজেকে সন্তুষ্ট করার মতো পারফরম করতে। সেই চেষ্টায় সফলও হয়েছি। আমি আমাকে সন্তুষ্ট করেছি। বাকিটা তো আর আমার হাতে নয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা