kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

বিক্ষোভে অনিশ্চিত এল ক্লাসিকো

১৮ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিক্ষোভে অনিশ্চিত এল ক্লাসিকো

বিক্ষোভে ফেটে পড়েছে কাতালোনিয়া। স্বাধীনতাকামী নেতাদের কারাবাস, সমর্থকদের ওপর পুলিশি আক্রমণ মিলিয়ে উত্তাল বার্সেলোনা। নেতাদের মুক্তির দাবিতে বিবৃতি দিয়েছে বার্সাও। এই সময়ে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ এল ক্লাসিকো খেলতে শহরে এলে পড়তে পারে জনরোষে। তাই অনিশ্চিত ২৬ অক্টোবর ন্যু ক্যাম্পে হতে চলা এই মৌসুমে লা লিগার প্রথম এল ক্লাসিকো। স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশন আর লা লিগা কর্তৃপক্ষের কেউই চায় না ২৬ তারিখের ম্যাচটি হোক। এর বদলে রিয়াল মাদ্রিদকে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল একই দিনে সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে খেলার। তাতে সাড়া দেয়নি রিয়াল। দেবেই বা কেন? মৌসুম শেষের আগে নিজেদের মাটিতে বার্সার বিপক্ষে ম্যাচের পয়েন্ট গড়ে দিতে পারে শিরোপা ভাগ্য। সেই সুযোগ হেলায় হারাতে চায় না তারা।

২০১৭ সালে স্বাধীনতা ঘোষণা করে কাতালোনিয়া। এর পর থেকে স্পেনের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতি পৌঁছেছে তলানিতে। এর পেছনে যেসব নেতার ভূমিকা রয়েছে তাঁদের ৯ জনকে এই সপ্তাহে জেলে পাঠিয়েছে স্প্যানিশ সরকার। এই শাস্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ তীব্র হয়ে চলেছে কাতালোনিয়ায়। একটা সময় বন্ধই ছিল এল প্রাত বিমানবন্দর। ওয়েলসের বিপক্ষে ইউরো বাছাই পর্বের ম্যাচ খেলে ফেরা ক্রোয়েশিয়ান তারকা ইভান রাকিতিচ বিমানবন্দর থেকে বাড়ি ফিরেছিলেন হেঁটে। শহর থেকে অন্য কোথাও যাওয়ার ভরসা শুধু ট্রেন ও বাস। আগামী শনিবার এইবারের বিপক্ষে ম্যাচ খেলতে লিওনেল মেসিদের বাসে পাড়ি দিতে হতে পারে ৩৮০ মাইল। ছয় ঘণ্টার এই ভ্রমণ নিয়ে শঙ্কিত তাঁরা। এরপর আবার ২৬ অক্টোবর এল ক্লাসিকোর দিন স্বাধীনতাকামীরা ঘোষণা দিয়ে রেখেছেন বিক্ষোভ র‌্যালির। ম্যাচটি পিছিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনাই তাই বেশি। মার্কা জানাচ্ছে এল ক্লাসিকো পিছিয়ে অনুষ্ঠিত হতে পারে ১৮ ডিসেম্বর। এখন শুধু আনুষ্ঠানিক ঘোষণার অপেক্ষা। মার্কা

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা