kalerkantho

রবিবার। ১৭ নভেম্বর ২০১৯। ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

শুরু হচ্ছে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা অনূর্ধ্ব-১৭ ফুটবল

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ক্রীড়া প্রতিবেদক : বঙ্গবন্ধু গোল্ড কাপ অনূর্ধ্ব-১৭ জাতীয় গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট শুরু হয়েছে গত বছর থেকে। এবার এর সঙ্গে যোগ হচ্ছে মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৭ বঙ্গমাতা জাতীয় ফুটবল। ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীন এ দুটি টুর্নামেন্ট আজ শুরু হচ্ছে টাঙ্গাইলে।

গতকাল জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ মিলনায়তনে এই টুর্নামেন্টের লোগো উন্মোচন করেছেন ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিওএ মহাসচিব সৈয়দ সাহেদ রেজা, বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন ও মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. জাফর উদ্দিন। তাঁদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান অনূর্ধ্ব-১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নেবে মোট এক লাখ ১৩ হাজার ৫০ জন খেলোয়াড়। উপজেলা, জেলা, বিভাগীয় পর্ব পেরিয়ে জাতীয় পর্যায়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে আট দল। একইভাবে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব অনূর্ধ্ব-১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নেবে ১১ হাজারেরও বেশি মেয়ে, এটা শুরু হবে জেলা পর্যায় থেকে। ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল এই ফুটবল টুর্নামেন্ট আয়োজনের লক্ষ্যের কথা ব্যাখ্যা করেছেন এভাবে, ‘এই খেলা আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য হলো যুবসমাজকে মাদক থেকে দূরে রাখা। পাশাপাশি এর মাধ্যমে যদি দেশের ফুটবলকে একটু সাহায্য করা হয়।’

এর আগে দীর্ঘদিন ধরে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধীনে প্রাইমারি স্কুলের ছেলে ও মেয়েদের অংশগ্রহণে হয়ে আসছে বঙ্গবন্ধু ফুটবল ও বঙ্গমাতা ফুটবল টুর্নামেন্ট। ছেলেদের টুর্নামেন্টের সুফল বাফুফে নেওয়ার চেষ্টা না করলেও মেয়েদের বঙ্গমাতা টুর্নামেন্টই হয়ে গেছে দেশের মহিলা ফুটবলের আঁতুড়ঘর। তবে গতকাল বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের এই আয়োজনে সন্তোষ প্রকাশ করে বলেছেন, ‘এই টুর্নামেন্ট থেকে কিছু প্রতিভা বাছাইয়ের সুযোগ আছে। বাফুফে খুব ভালোভাবে এই টুর্নামেন্ট দুটির ওপর চোখ রাখবে। খেলোয়াড় বাছাইয়ের জন্য আমাদের বিদেশি কোচ আছে। এখান থেকে আমরা যদি ১০০ জন ভালো প্রতিভা পাই, তাদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে গড়ে তোলার ব্যবস্থা করব।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা