kalerkantho

এখনো ঝুলে নেইমার-কুতিনহো

৯ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এখনো ঝুলে নেইমার-কুতিনহো

প্যারিস সেন্ত জার্মেইর সঙ্গে সম্পর্কটা বিষিয়ে উঠেছে। পুরনো ক্লাব বার্সেলোনায় ফেরার জন্য তাই মরিয়া নেইমার। কিন্তু সেটি বোধকরি এবারের দলবদলের মৌসুমে হচ্ছে না। আর তা ফিলিপে কুতিনহোর কারণে!

নেইমার-পিএসজি-বার্সার মধ্যে কুতিনহো এলেন কিভাবে? এলেন, কারণ তিনি বার্সেলোনা না ছাড়লে তাঁর ব্রাজিলিয়ান সতীর্থকে দলে ভেড়ানোর অবস্থায় আসতে পারছে না স্প্যানিশ ক্লাবটি। লিভারপুল থেকে ১৪২ মিলিয়ন পাউন্ডে কেনা কুতিনহো ডাহা ফ্লপ। কেনা মূল্যের অর্ধেকেই নাকি তাঁকে ছেড়ে দিতে চায় বার্সা। তবু ক্রেতা নেই। গোটা মৌসুমের জন্য ধারে টটেনহামে খেলতে পাঠানোয় সমাধান খোঁজা হয়। সেটিও ভেস্তে যায় কুতিনহোর অনাগ্রহে। ফলে বার্সেলোনাতেই থাকছেন এই ব্রাজিলিয়ান; আরেক নেইমারের জন্য জায়গা তাই ফাঁকা হচ্ছে না।

সুযোগটা আবার নিতে চায় রিয়াল মাদ্রিদ। নেইমারের জন্য তারা ১০০ মিলিয়ন ইউরোরা সঙ্গে লুকা মডরিচকেও প্রস্তাব করেছে বলে গণমাধ্যমের খবর। কিন্তু পিএসজির তা একবাক্যে উড়িয়ে দেওয়ার কথা। যে ২২২ মিলিয়ন ইউরো দিয়ে বার্সা থেকে নেইমারকে কিনেছে তারা দুই মৌসুম আগে, এর চেয়ে কমে যে বিক্রি করতে অনিচ্ছুক ফরাসি ক্লাবটি। নেইমারের ভবিষ্যতের সামনে তাই প্রশ্নবোধক চিহ্ন রয়েই যাচ্ছে।

রোমেলু লুকাকুর ক্লাব ক্যারিয়ারও ছিল এমনই ধোঁয়াশাচ্ছন্ন। শেষ পর্যন্ত এই বেলজিয়ান স্ট্রাইকার ইন্টারে যাচ্ছেন বলে বিবিসির খবর। লুকাকুর এজেন্ট ফেদেরিকো পাস্তোরেলো প্রাইভেট জেটের সামনে দুজনের ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে ক্যাপশন লেখেন, ‘ওড়ার জন্য তৈরি; গন্তব্য মিলান।’ তাতেই ওই খবর পায় সত্যতার ভিত্তি। গেল জুলাইতে এ স্ট্রাইকারের জন্য ইতালিয়ান ক্লাবটির ৫৪ মিলিয়ন পাউন্ডের প্রস্তাব ফিরিয়ে দেয় ম্যানইউ। নতুন যে প্রস্তাব গ্রহণ করেছে, সেটি ৭৪ মিলিয়ন পাউন্ডের। দুই বছর আগে এভারটন থেকে ৭৫ মিলিয়ন পাউন্ডে লুকাকুকে কিনেছিল ম্যানইউ।

লুকাকুর সঙ্গে অদলবদলের প্রস্তাব ছিল পাউলো দিবালার। কিন্তু জুভেন্টাসের ওই আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ডের বেতনের দাবি জেনে পিছিয়ে  যায় ম্যানইউ। কাল ইংল্যান্ডের দলবদলের শেষ দিনে দিবালার টটেনহামে যোগ দেওয়ার খবর শোনা যায়। সেটিও শেষ পর্যন্ত হয়নি।  এদিকে চেলসি থেকে আট মিলিয়ন পাউন্ডে ডিফেন্ডর দাভিজ লুইজকে কিনেছে আর্সেনাল। বিবিসি

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা