kalerkantho

সোমবার । ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১১ রবিউস সানি ১৪৪১     

মুখোমুখি প্রতিদিন

দ্বিতীয় পর্বে কিংসকে হারাতেই হবে

১৪ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দ্বিতীয় পর্বে কিংসকে হারাতেই হবে

জয় দিয়েই প্রথম পর্ব শেষ করল আবাহনী। শেখ জামালের বাধা পেরিয়েছে তারা ৪-৩ গোলে। এই জয়েও অবশ্য টেবিলে দ্বিতীয় স্থান নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হচ্ছে তাদের। এক ম্যাচ হাতে রেখেই বসুন্ধরা কিংস এগিয়ে তাদের চেয়ে। কাল ম্যাচ শেষে আকাশি-নীল কোচ মারিও লেমোস কথা বলেছেন এসব প্রসঙ্গেই

 

প্রশ্ন : ম্যাচটা ৪-৩ হবে ভাবতে পেরেছিলেন?

মারিও লেমোস : এ ধরনের কন্ডিশনে লড়াইটাই মূল কথা। আমার খেলোয়াড়রা সেটা অনেকটাই পেরেছে। তবে শেষ পর্যন্ত সত্যি খুশি হতে পারিনি। শেষদিকে ওই দুটি গোল হজম করা মোটেও ঠিক হয়নি। ৪-১ করার পর আমরা গতি হারিয়ে ফেলি, জামাল সেটাই কাজে লাগিয়েছে।

প্রশ্ন : এএফসি কাপের ম্যাচের আগে তা কি ভাবনায় ফেলছে?

লেমোস : ডিফেন্স নিয়ে দুশ্চিন্তা থাকছেই। এএফসি কাপে এমনটা হলে আমাদের নিশ্চিত ভুগতে হবে। ৪-১ হওয়ার পর আমরা মনোযোগ হারিয়েছিলাম, তারই খেসারত দিতে হয়েছে। খেলোয়াড়রা হয়তো ভেবেছিল ম্যাচ জিতে গেছে, কিন্তু খুব আগেভাগেই তা ভেবে ফেলেছিল তারা।

প্রশ্ন : মিনার্ভার বিপক্ষে তাহলে কতটা আশাবাদী?

লেমোস : অবশ্যই আশাবাদী। শেখ রাসেলের বিপক্ষে ম্যাচের পর থেকে আমরা জয়ের মধ্যেই আছি। ১১ দিনে টানা তিন ম্যাচ জিতেছি। খেলোয়াড়দের তাই আত্মবিশ্বাস বেড়েছে। এএফসি কাপের গ্রুপেও আমরা শীর্ষে আছি। এখন শুধু জয়ের ধারাটা ধরে রাখতে হবে আমাদের। আমার মনে হয় এবারের আসরে খুব ভালো সুযোগ আছে আমাদের।

প্রশ্ন : নাবিব তো গোল করেই চলেছেন?

লেমোস : আগেও বলেছি ওর সামর্থ্যের কথা। এখন যেন গোল ছাড়া ও থাকতেই পারছে না। সত্যি ওকে নিয়ে আমি খুব খুশি।

প্রশ্ন : বসুন্ধরা কিংস শেষ ম্যাচে জিতলে আবাহনীর চেয়ে ৪ পয়েন্ট এগিয়ে থাকবে তারা, সে ক্ষেত্রে দ্বিতীয় পর্বটা তো আপনাদের জন্য কঠিন?

প্রশ্ন : হ্যাঁ, খুবই কঠিন। আমাদের জয় ছাড়া চলবেই না। বসুন্ধরা কিংসের মুখোমুখি হব যে ম্যাচটাতে সেটাতে ওদের হারাতে পারলেই আমাদের সম্ভাবনা বেড়ে যাবে, না পারলে কিন্তু ওরাই এগিয়ে যাবে আরো। এখন শুধু একটাই করণীয়—টানা জয়ে ওদের চাপের মধ্যে রাখা আর ওই ম্যাচটা জেতার চেষ্টা করা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা