kalerkantho

লজ্জা এড়ানোর লড়াইয়েও শর্ট বল আতঙ্ক

১৫ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



লজ্জা এড়ানোর লড়াইয়েও শর্ট বল আতঙ্ক

ক্রীড়া প্রতিবেদক : নতুন এক ডেলিভারি নিয়ে একসময় নিয়মিতই কথা বলতেন রুবেল হোসেন। যেটির নাম ছিল ‘বাটারফ্লাই’ বা ‘প্রজাপতি’। সেটি পুরোপুরি রপ্ত করতে পেরেছেন বলে অবশ্য কোনো খবর নেই। এর মধ্যেই আরেক পেসার আবু জায়েদ শোনালেন নতুন আরেক ডেলিভারির খবর। ‘বাবল বল’ নামের ডেলিভারিটা তিনি শেখার চেষ্টায় আছেন। সেই চেষ্টায় সাফল্য পেতে যেতে হবে নিউজিল্যান্ডের অভিজ্ঞ পেসার টিম সাউদির কাছেও। ক্রাইস্টচার্চে কাল জায়েদ নিজেই জানালেন যে সিরিজ শেষে এই ডেলিভারির কারিকুরি শিখতে সাউদির কাছে যাবেন।

এর আগেই অবশ্য জানা হয়ে যাবে যে কিউই পেসাররা আবারও বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের পেটে ‘প্রজাপতির নাচন’ তুলে দিতে পেরেছেন কি না! সফরকারী দলের ব্যাটসম্যানদের মাঝে শর্ট বল আতঙ্কের বুদবুদ তুলেই তো আগের দুই টেস্টে ইনিংসের ব্যবধানে সহজ জয় পেয়েছে স্বাগতিকরা। ওয়েলিংটনেই তিন ম্যাচের সিরিজ ২-০তে জিতে নেওয়া নিউজিল্যান্ডের সামনে এখন বাংলাদেশকে হোয়াইটওয়াশ করার হাতছানিও। আর অসহায় আত্মসমর্পণের নিয়তি মেনে নিতে থাকা বাংলাদেশ দল যেন সফরটি শেষ হলেই বাঁচে। তবে শেষ হওয়ার আগে হোয়াইটওয়াশের লজ্জা এড়ানো কিংবা পাল্টা প্রতিরোধের কোনো গল্প লেখার শেষ সুযোগ হয়ে আসছে আগামীকাল বাংলাদেশ সময় ভোর ৪টায় শুরু হতে যাওয়া ক্রাইস্টচার্চ টেস্ট। হ্যাগলি ওভালে অনুমিতভাবেই নেইল ওয়াগনারের নেতৃত্বে কিউই পেস আক্রমণ ‘শর্ট বল থিওরি’ প্রয়োগ করবে আবারও। আগের দুই টেস্টে এর কোনো জবাব খুঁজে না পাওয়াও যথারীতি বাংলাদেশের জন্য চ্যালেঞ্জ বাড়িয়ে রাখছে আরো।

অবশ্য এই টেস্টের আগে বাংলাদেশ দলের জন্য একমাত্র স্বস্তির খবর মুশফিকুর রহিমের ফেরার সম্ভাবনা। ‘সম্ভাবনা’ই কারণ টিম ম্যানেজমেন্ট তাঁর বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে পৌঁছার আগে আরেকটু অপেক্ষা করে দেখতে চায়। পূর্ব অভিজ্ঞতাই এই সতর্কতার কারণ। ওয়েলিংটন টেস্টের আগেও মুশফিকের খেলার সম্ভাবনার কথা শোনা গিয়েছিল। কিন্তু ক্রিকেট বলে নক করতে গিয়ে কবজির লিগামেন্টে চোট অনুভব করাতেই টেস্ট সিরিজে এখন পর্যন্ত দর্শক মুশফিক। ডানেডিনে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে আঙুলে চোট পাওয়া এই উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যানকে নিয়ে অবশ্য ক্রাইস্টচার্চ টেস্টের আগে আশাবাদী হওয়ার কারণ আছে অনেক। ওয়েলিংটনে ব্যাটিং করলেও সেটি ছিল হালকা অনুশীলনের পর্যায়ে। ছুড়ে দেওয়া টেনিস ও রাবার বলে নক করেছেন প্রথমে। এরপর ক্রিকেট বলে নক করতে গিয়েই বিপত্তি। ক্রাইস্টচার্চ টেস্টের আগে গতকাল পুরোমাত্রায়ই ব্যাটিং অনুশীলন করলেন মুশফিক। পেস বোলারদের বল খেলেছেন নেটে। নিউজিল্যান্ডের নেট বোলার থেকে নিজ দলের পেসার, সবার বিপক্ষেই ব্যাটিংয়ে এমন স্বচ্ছন্দ ছিলেন যে সেটিই ক্রাইস্টচার্চে তাঁর ফেরার সম্ভাবনা বাড়িয়ে দিয়েছে বহুগুণ। তবে চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে যেতে আজ টেস্ট-পূর্ব শেষ অনুশীলন সেশনেও তাঁকে পরখ করে দেখতে চায় টিম ম্যানেজমেন্ট। সেই পরীক্ষায় উতরে গেলে মুশফিক খেলবেন। এবং তাঁর উপস্থিতিতে মিডল অর্ডারে গভীরতাও বাড়বে। ২০১৭ সালে এর আগের সফরে ওয়েলিংটনে ১৫৯ রানের ইনিংস খেলা মুশফিকের ফেরার ম্যাচে যদি মন্দের ভালো কিছু একটা করতে পারে বাংলাদেশ, সব হারানোর সিরিজে পরম প্রার্থিত এখন যে এটিই!

মন্তব্য