kalerkantho

সোমবার । ১৪ অক্টোবর ২০১৯। ২৯ আশ্বিন ১৪২৬। ১৪ সফর ১৪৪১       

মুখোমুখি প্রতিদিন

এবার অনেক বেশি প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এবার অনেক বেশি প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে

তৃতীয়বারের মতো ঢাকায় হচ্ছে আইএসএসএফ ইন্টারন্যাশনাল সলিডারিটি আর্চারি চ্যাম্পিয়নশিপ। এ আসরে গতবার রুপা জেতা রোমান সানা কালের কণ্ঠ স্পোর্টসের মুখোমুখি হয়ে বলেছেন এবারের প্রস্তুতি ও প্রত্যাশা নিয়ে

কালের কণ্ঠ স্পোর্টস : আইএসএসএফ আর্চারির ব্যক্তিগত ইভেন্টে প্রথমবার কিছু না জিতলেও গতবার রুপা জিতেছেন, এবার নিশ্চয় সোনার আশা?

রোমান সানা : সোনা জয়ের আশা তো সব সময়ই থাকে। তবে এবার আগের দুইবারের চেয়ে বেশি প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে। কারণ এটিকে এবার র‌্যাংকিং টুর্নামেন্ট ঘোষণা করা হয়েছে। তাতে অংশগ্রহণও বেড়েছে। এবার ভারত থাকছে, নেপাল, জার্মানি, মালয়েশিয়া এবং আরো বেশ কয়েকটি ভালো মানের দল খেলবে। সেই হিসাবে পদকের জন্য জোর লড়াই-ই করতে হবে আমাদের। যদিও পদকই এ আসরে আমাদের মুখ্য উদ্দেশ্য না।

প্রশ্ন : মুখ্য উদ্দেশ্য তবে কী?

রোমান : আমরা এখন অলিম্পিক মাথায় রেখে প্রস্তুতি নিচ্ছি। আগামী জুলাইয়ে নেদারল্যান্ডসে ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়নশিপ হবে, সেই আসর থেকে অলিম্পিকে খেলার যোগ্যতা অর্জন করাটাই আমাদের মূল লক্ষ্য। তার আগে এই টুর্নামেন্টগুলো প্রস্তুতি টুর্নামেন্ট বলতে পারেন। ঢাকায় এই আইএসএসএফ আর্চারির পর মার্চে এশিয়া কাপ স্টেজ ওয়ান খেলব থাইল্যান্ডে, এপ্রিলে চীনে হবে ওয়ার্ল্ড কাপ স্টেজ ওয়ান। তাতেও আমাদের নেদারল্যান্ডসের প্রস্তুতি চলবে।

প্রশ্ন : এই টুর্নামেন্টের মান বাড়াটাও তাই নিশ্চয় আপনাদের জন্য ইতিবাচক?

রোমান : তাতো অবশ্যই। যত বেশি গেম খেলব, যত ভালো মানের টুর্নামেন্ট খেলতে পারব, ততই আমাদের আত্মবিশ্বাস বাড়বে। তাতে গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্টগুলোতে আমাদের পারফরম করাটা সহজ হবে, ভালো কিছু করতেও পারব।

প্রশ্ন : গত জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে আপনি শিরোপা হারিয়েছেন, তা কতটা উদ্দীপ্ত করছে?

রোমান : জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপের আগের সময়টা আমি অলিম্পিকের বৃত্তি নিয়ে সুইজারল্যান্ডে ছিলাম। শীতের কারণে ওখানে তখন আমাকে ইনডোরে অনুশীলন করতে হয়েছে। কিন্তু ঢাকায় এসে খেলতে হয়েছে আউটডোরে। সেটাই প্রভাব ফেলেছে। আমাকে আসলে সব সময় আউটডোরেই টুর্নামেন্ট খেলতে হবে। সুইজারল্যান্ড থেকে তাই একেবারে চলেই এসেছি। আরো কিছু কারণ ছিল, কোচের সঙ্গে আলোচনা করেই সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা