kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

ভালোবাসার রাতে আর্সেনালের হার

১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভালোবাসার রাতে আর্সেনালের হার

ভালোবাসার রাতে কামানের গর্জন বেমানান! সে জন্যই বোধহয় নীরব থাকলেন আর্সেনালের ফুটবলাররা। প্রতিপক্ষ বাতে বরিসভ, বেলারুশের ক্লাব। ২০১৭-১৮ মৌসুমে আর্সেনালই তাদের গ্রুপ পর্বের ম্যাচে হারিয়েছিল ৬-০ গোলে! এবার সেই ক্লাবই গানারদের হারিয়ে দিয়েছে ১-০ গোলে, তাও নক আউট পর্বের ম্যাচে। ইউরোপা লিগের দ্বিতীয় রাউন্ডের প্রথম লেগে অনেক দলই প্রতিপক্ষের মাঠে পেয়েছে গুরুত্বপূর্ণ জয়। হোঁচট খাওয়াদের তালিকায় অবশ্য আর্সেনাল একা নয়, আছে স্পোর্টিং লিসবন ও সেল্টিকের মতো দলগুলোও। তবে কোনোটাই আর্সেনালের হারের মতো অপ্রত্যাশিত নয়।

ধরা যাক স্পোর্টিং লিসবন ও ভিয়ারিয়ালের ম্যাচটার কথাই। দুটি দলই শক্তিমত্তায় কাছাকাছি। নিজের মাঠে ম্যাচের তৃতীয় মিনিটে হজম করা গোলটা আর শোধ করতে পারেনি স্পোর্টিং, উল্টো ৭৭ মিনিটে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছেড়ে দলের জন্য কাজটা কঠিন করে দিয়েছেন আকুইনা। নিজের মাঠে ভ্যালেন্সিয়ার কাছে সেল্টিকের হার ২-০ গোলে। এ জন্য সেল্টিক কোচ ব্রেন্ডন রজার্সকে বেশ কড়া কথা শুনিয়েছে স্কটিশ গণমাধ্যম। ভ্যালেন্সিয়ার দুই গোলদাতা চেরিশভ ও রুবেন সোব্রিনো। সেভিয়ার কাছে নিজ মাঠে ১-০ গোলে হেরেছে লািসও, অন্যদিকে র‌্যাপিড ভিয়েনার বিপক্ষে ১-০ গোলে জিতেছে ইন্টার মিলান। জুরিখের বিপক্ষে ৩-১ গোলের বড় জয় নাপোলির। মালমোর মাঠে চেলসি প্রথম লেগটা জিতেছে ২-১ গোলে। ম্যানচেস্টার সিটির কাছে ৬-০ গোলে বিধ্বস্ত হওয়ার পর এমন একটা জয় দরকার ছিল মুরিসিও সারির। গোল পেয়েছেন অলিভিয়ের জিরদ, এটাও কম সুখবর নয়!

আর্সেনাল সমর্থকদের তীব্র প্রতিক্রিয়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। যে দলকে দুই মৌসুম আগে ৬-০ গোলে হারিয়েছে আর্সেনাল, তারাই কিনা হারিয়ে দিল ১-০ গোলে! উয়েফা

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা