kalerkantho

মঙ্গলবার । ২২ অক্টোবর ২০১৯। ৬ কাতির্ক ১৪২৬। ২২ সফর ১৪৪১              

বর্ণবৈষম্য বিতর্কে সরফরাজ

২৪ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বর্ণবৈষম্য বিতর্কে সরফরাজ

২০১৩ সালের পর পাকিস্তানকে ওয়ানডেতে হারাতে পারেনি দক্ষিণ আফ্রিকা। আক্ষেপটা মিটল গত পরশু। ডারবানে সরফরাজ আহমেদের দলকে প্রোটিয়ারা হারাল ৫ উইকেটে। পাকিস্তানের ২০৩ রানের চ্যালেঞ্জ ৪৮ বল বাকি থাকতে পেরিয়ে যায় ফাফ দু প্লেসিসের দল। ৪ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি হার না মানা ৬৯ রানের ইনিংসে ম্যাচসেরার পুরস্কার আন্দিলে ফুলেকেয়োর। সেই ফুলেকেয়োকে ‘কালো’ বলে আবার বর্ণবৈষম্য বিতর্কে জড়িয়েছেন সরফরাজ আহমেদ। আইসিসি এমন অভিযাগ আমলে নিলে বড় বিপদ অপেক্ষা করছে সরফরাজের সামনে।

দক্ষিণ আফ্রিকার ৩৭তম ওভারে বল করছিলেন শাহীন শাহ আফ্রিদি। তৃতীয় বলে কভার ড্রাইভ করতে গিয়ে ব্যাটের কানায় লেগে জীবন পান ফুলেকোয়ো। তখনই গালি দিয়ে বসেন সরফরাজ। স্টাম্প মাইক্রোফোনে ধরা পড়ে তাঁর টিপ্পনী, ‘আরে কালা। তোর মা কোথায় বসে আছে? কী প্রার্থনা করছে তোর জন্য।’ ধারাভাষ্যকক্ষে রমিজ রাজার কাছে এর অর্থ জানতে চান ভাষ্যকার মাইক হেসম্যান। সরফরাজকে বিপদ থেকে বাঁচাতে রমিজ রাজা এড়িয়ে যান এভাবে, ‘এটা অনুবাদ করা কঠিন। আসলে অনেক লম্বা বাক্য তো?’

শেষ পর্যন্ত ফুলেকেয়োর হার না মানা ৮০ বলে ৬৯ রানের ইনিংসে জয় পায় প্রোটিয়ারা। পাকিস্তানের ২০৩-এর জবাবে একটা সময় ৮০ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়েছিল স্বাগতিকরা। র‌্যাসি ফন দার দুসেন ও আন্দিলে ফুলেকেয়ো হালটা ধরেন তখনই। দুসেন অপরাজিত ছিলেন ১২৩ বলে ৮ বাউন্ডারিতে ৮০ রানে। ক্রিকইনফো

পাকিস্তান : ৪৫.৫ ওভারে ২০৩ (হাসান ৫৯; ফুলেকেয়ো ৪/২২)। দক্ষিণ আফ্রিকা : ৪২ ওভারে ২০৭/৫ (দুসেন ৮০, ফুলেকেয়ো ৬৯*; শাহীন ৩/৪৪)। ফল : দক্ষিণ আফ্রিকা ৫ উইকেটে জয়ী।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা