kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

মুখোমুখি প্রতিদিন

এখানে নতুন করে শুরু করতে চাই

১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এখানে নতুন করে শুরু করতে চাই

ঢাকার মাঠে অনুজ্জ্বল সিলেট সিক্সার্স নিজেদের মাঠে কি জ্বলে উঠতে পারবে? বিপিএলের এই দ্বিতীয় পর্বে মূল মনোযোগটা এখন আসলে তাদেরকে ঘিরেই। কাল সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে আলাপে সিক্সার্সের পেসার তাসকিন আহমেদ নতুন শুরুর প্রত্যাশার কথাই শুনিয়েছেন

প্রশ্ন : বিপিএলে এখন পর্যন্ত তিনটি ম্যাচ খেলেছে সিলেট সিক্সার্স, তিনটির মধ্যে একটি জয়। এখন নিজেদের মাঠে আপনারা ঘুরে দাঁড়ানোর ব্যাপারে কতটা আত্মবিশ্বাসী? গতবার তো খুব ভালো পারফরম্যান্স ছিল এখানে সিক্সার্সের...

তাসকিন আহমেদ : পারফরম্যান্সে উত্থান-পতন হয়। আমরা সে জন্য এখনকার অবস্থান নিয়ে খুব বেশি চিন্তিতও না। যা হয়ে গেছে, হয়ে গেছে। সিলেটে টুর্নামেন্টটা নতুন করে শুরু হতে যাচ্ছে কাল (আজ) থেকে। আমরাও নতুনভাবে শুরু করতে চাই এখানে। এখানে আমরা ভালো কিছুরই আশা করছি। আশা করি সব ঠিকঠাকই হবে।

প্রশ্ন : দলে ডেভিড ওয়ার্নারের মতো ক্রিকেটার আছেন, তিনি কতটা অনুপ্রাণিত করতে পারছেন আপনাদের?

তাসকিন : মাঠ ও মাঠের বাইরে দুই দিক থেকেই ও খুব সাহায্য করছে আমাদের সব খেলোয়াড়কে। ও শুধু একজন ভালো খেলোয়াড়ই না, আসলে একজন ভালো সতীর্থও। একসঙ্গে অনেক সময় কাটাচ্ছি আমরা। কমনরুমে একসঙ্গে সবাই খেলাধুলা করছি। সব মিলিয়ে ওর সঙ্গটা উপভোগ করছি আমরা।

প্রশ্ন : ওয়াকার ইউনুস তো আছেনই, সোহেল তানভীর, মোহাম্মদ ইরফানদের সঙ্গেও কাজ করার অভিজ্ঞতা হচ্ছে আপনার, সেটা আপনার নিজের কতটা কাজে লাগছে?

তাসকিন : ওয়াকার ইউনসু তো আমাদের সব দেখিয়ে দিচ্ছেনই। এ ছাড়া সোহেল তানভীর কিংবা যারাই আছে, তারা সব সময়ই সাহায্য করছে। ওদের অভিজ্ঞতাও অনেক। চেষ্টা করছি তাদের সেই অভিজ্ঞতা থেকেই যতুটুকু নেওয়া যায় এবং তা দিয়ে ভালো কিছু করার।

প্রশ্ন : মূল ভেন্যুর বদলে জেলা স্টেডিয়ামে অনুশীলন করছেন, এখানকার সব সুযোগ-সুবিধা কেমন মনে হচ্ছে?

তাসকিন : ভেন্যু তো একটাই, কিন্তু অনেকগুলো টিম, সবাইকে অনুশীলনের সুযোগ করে দেওয়ার ব্যাপার আছে। আর সুযোগ-সুবিধার দিক দিয়ে বলতে গেলে খুব অসাধারণ কিছু হচ্ছে না। তবু যা হচ্ছে তা যথেষ্ট ভালো আমাদের প্রস্তুতির জন্য। এ নিয়েই আমরা ভালো কিছু করতে চাই।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা