kalerkantho

মঙ্গলবার। ২০ আগস্ট ২০১৯। ৫ ভাদ্র ১৪২৬। ১৮ জিলহজ ১৪৪০

আশরাফুলকে ছাপিয়ে রনি

১২ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আশরাফুলকে ছাপিয়ে রনি

ক্রীড়া প্রতিবেদক : আসর শুরুর আগে দল পাননি তিনি। মোহাম্মদ আশরাফুল দল যখন পেয়েছেন, তত দিনে পেরিয়ে গেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) দ্বিতীয় রাউন্ড। তৃতীয় রাউন্ড থেকে পূর্বাঞ্চলের হয়ে নামা এ ব্যাটসম্যান এবার সেঞ্চুরিও করলেন। উত্তরাঞ্চলের বিপক্ষে চতুর্থ রাউন্ডের ম্যাচের প্রথম দিন সেঞ্চুরি করে ডাবল সেঞ্চুরির কাছাকাছি পূর্বাঞ্চলের ওপেনার রনি তালুকদারও। রাজশাহীর শহীদ কামারুজ্জামান স্টেডিয়ামে রনি-আশরাফুলের বিশাল পার্টনারশিপে ৩ উইকেটে ৩৫৪ রান তুলে প্রথম দিন শেষ করা পূর্বাঞ্চল বড় সংগ্রহের পথেও। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে এই রাউন্ডের অন্য ম্যাচে দক্ষিণাঞ্চলের বিপক্ষে টস হেরে ব্যাটিং পাওয়া মধ্যাঞ্চলের অবস্থা অবশ্য সুবিধার নয়। ২৩৪ রান তুলতেই ৮ উইকেট হারিয়ে ফেলেছে তারা।

শুরু ভালো ছিল না পূর্বাঞ্চলেরও। দ্বিতীয় ওভারেই ওপেনার সাদিকুর রহমানকে হারায় তারা। সেখান থেকে রনিকে নিয়ে অধিনায়ক মমিনুল হকের পার্টনারশিপও স্থায়ী হয়নি বেশিক্ষণ। মমিনুলকে (২৬) স্টাম্পিংয়ের ফাঁদে ফেলে ফেরান অফস্পিনার সোহাগ গাজী। এরপর মাহমুদুল হাসানকে (২৯) নিয়ে ৭২ রানের পার্টনারশিপে রনি দারুণ একটা ভিত এনে দেন। যার ওপর দাঁড়িয়ে আশরাফুলকে নিয়ে গড়েন ২৩১ রানের অবিচ্ছিন্ন পার্টনারশিপও। ১৪৭ বলে সেঞ্চুরিতে পৌঁছানো রনি ১৯ বাউন্ডারি ও ৫ ছক্কায় দিনের শেষে অপরাজিত ১৮৩ রানে। আর ১৮৩ বলে তিন অঙ্ক ছোঁয়া আশরাফুল আজ শুরু করবেন ১০৭ রান নিয়ে। নিজের ২০তম ফার্স্ট ক্লাস সেঞ্চুরি করার পথে আশরাফুল মেরেছেন ১৩টি বাউন্ডারি।

ওদিকে মধ্যাঞ্চলের ইনিংসে একটিই ফিফটি। সেটি ওপেনার সাদমান ইসলামের (৬০)। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সদ্যঃসমাপ্ত টেস্ট সিরিজে অভিষিক্ত এ ব্যাটসম্যান রান আউটের দুর্ভাগ্যে কাটা পড়েছেন কাল। ৪৪ রান করা মার্শাল আইয়ুবও আউট হয়েছেন তাঁর আগেই। টেলএন্ডারদের নিয়ে তবু লড়াই চালিয়ে যাওয়া তাইবুর রহমানের (৪৩*) ব্যাটেই টিকে আছে মধ্যাঞ্চলের আরেকটু এগোনোর আশা।

মন্তব্য