kalerkantho

শনিবার । ১৩ আগস্ট ২০২২ । ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯ । ১৪ মহররম ১৪৪৪  

সায়েদাবাদ হয়ে ঢাকা ছাড়বে দক্ষিণের বাস

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৫ জুন, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পদ্মা সেতু চালুর পর রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ও মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া ফেরিঘাটে দক্ষিণাঞ্চলের বাসের চাপ কমবে। রাজধানী ঢাকার গাবতলী ও কল্যাণপুর থেকে আরিচা করিডরে দক্ষিণাঞ্চলগামী বাস চলাচলও কমবে। কারণ ঢাকার বেশির ভাগ বাস সায়েদাবাদ হয়ে দক্ষিণাঞ্চলে যাবে। এতে জ্বালানি, ভোগান্তি ও পথের দূরত্ব কমে আসবে।

বিজ্ঞাপন

ফেরির পরিবর্তে সেতু ব্যবহার করে পদ্মা নদী পাড়ি দিতে সায়েদাবাদ থেকে বাসগুলো মেয়র হানিফ উড়ালসেতু দিয়ে কেরানীগঞ্জ হয়ে ঢাকা ছাড়বে। এরপর ঢাকা-মাওয়া-ভাঙ্গা এক্সপ্রেসওয়ে ব্যবহার করে পদ্মা সেতু দিয়ে দক্ষিণাঞ্চলের জেলাগুলোতে যাবে।  

এই নতুন পথ ব্যবহারের জন্য নতুন নামানো বাসকে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) কাছ থেকে রুট পারমিট নিতে হবে। বাস মালিকদের পথটি ব্যবহারের জন্য আবেদন করতে হবে। তবে বর্তমান আইন অনুযায়ী সকাল ৭টার পর বড় বাস ঢাকার ভেতরে ঢুকতে পারবে না। সে ক্ষেত্রে সায়েদাবাদ থেকে ছোট বাসে ঢাকার বিভিন্ন গন্তব্যে যাবে যাত্রীরা।

বিআরটিএর চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ মজুমদার বলেন, পদ্মা সেতু চালু হলে এদিকে নতুন একটি রুট তৈরি হবে। পদ্মা সেতু ব্যবহারের জন্য যেসব বাস ঢাকা থেকে দক্ষিণাঞ্চলে চলাচল করবে, সেগুলোর নতুন করে রুট পারমিট লাগবে না। তবে নতুন বাস নামালে সেগুলোর অনুমতি বা রুট পারমিট নিতে হবে।

 

সায়েদাবাদ হয়ে দক্ষিণাঞ্চলের বাস চলাচল করলেও যাত্রীদের কোনো সমস্যা হবে না বলে জানিয়েছেন হানিফ পরিবহনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোশারফ হোসেন। তিনি বলেন, সায়েদাবাদ হয়েই বেশির ভাগ বাস দক্ষিণাঞ্চলে যাবে। তবে দিনের বেলা সব কাউন্টার থেকেই যাত্রীরা ছোট বাসের সেবা পাবে। ফলে তাদের কোনো কাউন্টারেই সমস্যা হবে না। আর রাত ৯টার পর ঢাকায় বড় বাস চলাচল করতে পারে।

বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েত উল্যাহ জানান, বাসের নতুন রুট পারমিট দেওয়া হলেও ঢাকায় বড় বাসের চাপ বাড়বে না। আগের মতোই চলবে। শুধু ঢাকা থেকে বের হওয়ার পথটা ভিন্ন হবে।

পদ্মা সেতুকে কেন্দ্র করে ঢাকা শহরের সড়কব্যবস্থা ঢেলে সাজানোর কথা বলছেন যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মোজাম্মেল হক চৌধুরী। তিনি বলেন, আগে যেসব বাস গাবতলী থেকে দক্ষিণাঞ্চল যেত সেগুলো গাবতলী থেকেই ঢাকা ছাড়ত। এখন ওই বাসগুলো ঢাকার ভেতর দিয়ে সায়েদাবাদ পর্যন্ত যাবে। ফলে ঢাকায় যানজটের চাপ বাড়বে।



সাতদিনের সেরা